Home /News /coronavirus-latest-news /

করোনা-তথ্যই হাতিয়ার, বিজেপিকে তাদের অস্ত্রেই বিঁধতে মাস্টার প্ল্যান তৈরি তৃণমূলের

করোনা-তথ্যই হাতিয়ার, বিজেপিকে তাদের অস্ত্রেই বিঁধতে মাস্টার প্ল্যান তৈরি তৃণমূলের

আপাতত , করোনা পর্বে বিজেপিকে একহাত নিতে মোদির রাজ্য গুজরাটে হাসপাতালে পঞ্চাশ জন করোনায় মৃত, তার ভিডিও বাজারে আনতে চলেছে টিম পিকে ।

  • Share this:

    #কলকাতা: নেপথ্যে সেই প্রশান্ত কিশোর ।এবার স্যোশাল মিডিয়ায় কার্যত বিজেপির বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করতে চলেছে তৃণমূল কংগ্রেস। লকডাউনের জেরে যখন মিটিং মিছিল বন্ধ, তখন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকেই বিজেপির বিরুদ্ধে প্রচারের শক্তিশালী অস্ত্র হিসেবে তুলে ধরছে তৃণমূল ।

    তৃণমূল কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্ব থেকে ব্লকস্তর পর্যন্ত ভিডিও কনফারেন্স , হোয়াটসআপ গ্রুপ সহ নানা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বাধার কাজ শুরু হয়েছে ।এই গ্রুপ গুলির মাধ্যমে টিম পিকে-র বানানো নানা প্রচার মূলক ভিডিও, পরিসংখ্যান সহ ছোট প্রেজেন্টেশন ছড়িয়ে দেওয়া হবে । ওই প্রচার ভিডিও-র বক্তব্যগুলি একদিকে যেমন যুক্তিপূর্ণ ও তথ্যপূর্ণ কথার যোগান দেবে নেতা কর্মীদের । ঠিক তেমনিই ভাইরাল হয়ে ছড়িয়ে পড়ে জনমতকে প্রভাবিত করবে ।

    রবিবার পিকে-র ভিডিও বৈঠকে উপস্থিত থেকে এই সারমর্মই বুঝেছেন তৃণমূলের বিধায়করা । আপাতত , করোনা পর্বে বিজেপিকে একহাত নিতে মোদির রাজ্য গুজরাটে হাসপাতালে পঞ্চাশ জন করোনায় মৃত, তার ভিডিও বাজারে আনতে চলেছে টিম পিকে ।

    এদিন বৈঠকে পিকে বলেন,আত্মতুষ্টিতে ভুগবেন না ।over confidence এবং complexity-তে ভুগবেন না, যে সব ভালো কাজ হচ্ছে । আরও বেশি করে মানুষের কাছে যান । বিধায়কদের বৈঠকে কড়া বার্তা পিকে-র ।বাংলায় প্রচুর লোক মরেছে বলে বিজেপি প্রচার করছে । এবার গুজরাটের হাসপাতালে ৫০ টা লাশ পড়ে আছে, সেই ভিডিও পাল্টা প্রচার করবে তৃণমূল ।। বৈঠকে বার্তা নেতৃত্বের ।বাংলায় ১০ লাখ লোক পিছু ২ জন মরেছে , গুজরাটে মরেছে ১০ লাখে ৪ জন ।এই তথ্য স্যোসাল মিডিয়ায় প্রচার করার ওপর জোর বিধায়কদের ।

    লকডাউনে তৃণমূল বিধায়কদের পাঁচটি মূল কাজের নির্দেশ অভিষেকের ৷ ক) স্যোশাল মিডিয়াই প্রচার খ)কেউ যেন অভুক্ত না থাকে তা দেখা গ)সবাই যেন রেশন পায় , কেউ না পেলে প্রশাসনকে জানানো । ঘ)পরিযায়ী শ্রমিক দের লিস্ট বানান , প্রশাসনকে জানান ঙ)সাংবাদিকদের সঙ্গে হোয়াটস আপ গ্রুপে সংযোগ রাখুন

    বৈঠকে পিকে, অভিষেক, অমিত মিত্র, পার্থ চট্টোপাধ্যায়, সুব্রত বক্সী ছিলেন । অমিত মিত্র বলেন , আর্থিক বঞ্চনা থাকা সত্ত্বেও ১ তারিখে বেতন দিয়েছে রাজ্য সরকার ।।রবিবার মিটিংয়ে অনুপস্থিত থাকলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায় । ভিডিও কনফারেন্স করার প্রযুক্তি জানা নেই তার ।তাই জানিয়েছেন দলকে । এদিনের বৈঠকের পর আগামিকাল থেকে জেলায় জেলায় সব মহকুমা ও ব্লককে নিয়ে বৈঠক হবে । যেখানে নেতৃত্বের এই বার্তা নিচু তলা পর্যন্ত পৌঁছে দেওয়া হবে । সোমবার উত্তর 24 পরগনা দিয়ে শুরু হবে জেলা স্তরে প্রতিটি ব্লকের সঙ্গে সমন্বয় বৈঠক ।

    Sourav Guha

    Published by:Elina Datta
    First published:

    Tags: Corona facts are the weapon, TMC Strategy against BJP

    পরবর্তী খবর