corona virus btn
corona virus btn
Loading

ভিআইপি বলেই কোয়ারেন্টাইনে ছাড়! বিমান পরিষেবার প্রথম দিনেই বিতর্কে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী

ভিআইপি বলেই কোয়ারেন্টাইনে ছাড়! বিমান পরিষেবার প্রথম দিনেই বিতর্কে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী
বেঙ্গালুরু বিমানবন্দরে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী সদানন্দ গৌড়া৷

কর্ণাটক সরকারের নির্দেশিকায় অবশ্য বলা হয়েছে, একমাত্র জরুরি কোনও কাজে আসা ব্যক্তিদের ক্ষেত্রেই কোয়ারেন্টাইনে থাকার নিয়মে ছাড় দেওয়া হবে৷

  • Share this:

#বেঙ্গালুরু: তিনি মন্ত্রী৷ তাই নাকি তাঁকে কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে না৷ অভ্যন্তরীণ বিমান পরিষেবা শুরু হওয়ার প্রথম দিনেই নিয়ম না মানার অভিযোগ উঠল কেন্দ্রীয় মন্ত্রী সদানন্দ গৌড়ার বিরুদ্ধে ৷ বেঙ্গালুরুতে পৌঁছে সরকারি নির্দেশিকা মেনে হোটেলে কোয়ারেন্টাইনে না থেকে বিতর্কে জড়িয়েছেন তিনি৷

প্রায় দু' মাস বন্ধ থাকার পর এ দিন থেকেই অভ্যন্তরীণ বিমান পরিষেবা চালু হয়েছে৷ এ দিন সকালে দিল্লি থেকে বেঙ্গালুরু এসে পৌঁছন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী গৌড়া৷ অন্যান্য রাজ্য থেকে আসা সব বিমানযাত্রীদের জন্য সাত দিন প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইন এবং সাত দিন হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা বাধ্যতামূলক ঘোষণা করেছে কর্ণাটক সরকার৷ দিল্লি, মহারাষ্ট্র, গুজরাত, তামিলনাড়ুর মতো যে রাজ্যগুলিতে করোনা সংক্রমণের হার বেশি, সেখান থেকে আসা যাত্রীদের ক্ষেত্রে আরও বেশি নজরদারি রাখা হবে৷ যদিও সেসবের ধার ধারেননি সদানন্দ গৌড়া৷ বিমানবন্দরে নেমেই নিজের গাড়িতে উঠে রওনা দেন তিনি৷ তাঁর সহকারী দাবি করেন, যাত্রার আগে কোভিড পরীক্ষা করিয়েছেন গৌড়া৷ তার ফল নেগেটিভ এসেছে৷

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী পরে দাবি করেন, কয়েকজনের ক্ষেত্রে কোয়ারেন্টাইনে থাকার নিয়মে ছাড় দেওয়া হয়েছে৷ তার উপর তিনি যেহেতু কেন্দ্রীয় সরকারের ফার্মাসিউটিক্যালস দফতরের মন্ত্রী, তাই তিনি কোয়ারেন্টাইনে থাকলে ওষুধ সরবরাহে প্রভাব পড়বে৷ কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেন, 'আমি ওষুধ সরবরাহ না করলে তো করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দ্বিগুণ হয়ে যাবে৷' গৌড়া দাবি করেন, তাঁর মোবাইল ফোনে আরোগ্য সেতু অ্যাপও ডাউনলোড করা আছে৷

কর্ণাটক সরকারের নির্দেশিকায় অবশ্য বলা হয়েছে, একমাত্র জরুরি কোনও কাজে আসা ব্যক্তিদের ক্ষেত্রেই কোয়ারেন্টাইনে থাকার নিয়মে ছাড় দেওয়া হবে৷ যদিও সেই নির্দেশিকায় মন্ত্রীদের ছাড় দেওয়ার কথা বলা হয়নি৷ তবে তার জন্য তাঁদের করোনা পরীক্ষার ফল নেগেটিভ থাকতে হবে৷ আইসিএমআর অনুমোদিত ল্যাব থেকে যাত্রা শুরুর সর্বোচ্চ দু' দিন আগে এই পরীক্ষা করানো হলে তবেই সেই রিপোর্ট গ্রাহ্য হবে৷ তবে কর্ণাটকে পাঁচ দিনের বেশি থাকলে ফের একবার সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির করোনা পরীক্ষা করাতে হবে৷ সূত্রের খবর, বিমান পরিষেবা শুরু হওয়ার দু'দিন আগে থেকেই একাধিক কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নিজেদের করোনা পরীক্ষা করিয়ে নিয়েছেন৷

Published by: Debamoy Ghosh
First published: May 25, 2020, 4:11 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर