corona virus btn
corona virus btn
Loading

হরিশ্চন্দ্রপুরের আইসি-র বিরুদ্ধে ক্ষোভ, মালদহে রাতভর থানায় বিক্ষোভ বিজেপি সাংসদের

হরিশ্চন্দ্রপুরের আইসি-র  বিরুদ্ধে ক্ষোভ, মালদহে রাতভর থানায় বিক্ষোভ বিজেপি সাংসদের
থানার বাইরে সাংসদ খগেন মুর্মু।

খগেন মুর্মুর দাবি, বিজেপি কর্মীদের মিথ্যে মামলায় ফাঁসানো হচ্ছে।

  • Share this:

#মালদহ: মালদহে রাতভর থানা ঘেরাও করলেন বিজেপি সাংসদ। হরিশ্চন্দ্রপুর থানার সামনে অবস্থানে দেখা গেল উত্তর মালদহের বিজেপি সাংসদ খগেন মুর্মু। থানার আইসির বিরুদ্ধে দুর্ব্যবহারের অভিযোগ করেন সাংসদ। থানার গেট আটকে অবস্থান-বিক্ষোভ চলে বিজেপি সাংসদ ও নেতাকর্মীদের।

খগেন মুর্মুর দাবি, বিজেপি কর্মীদের মিথ্যে মামলায় ফাঁসানো হচ্ছে। গতকাল অর্থাৎ শুক্রবার এই নিয়ে হরিশ্চন্দ্রপুরের আইসির সঙ্গে ফোনে কথা বলতে চান সাংসদ। অভিযোগ সংসদের সঙ্গে ফোনে কথা বলতে রাজি হননি হরিশ্চন্দ্রপুর এর আই সি। এর পরেই সদলবলে থানায় এসে রাত থেকে ধরনায় বসে পড়েন সাংসদ খগেন মুর্মু। ভোর চারটা পর্যন্ত চলে ধরনা। তৈরি হয় তুমুল উত্তেজনা ।

পরে পরিস্থিতি সামাল দিতেই আইসির সঙ্গে আলোচনায় বসেন সংসদ। অভিযোগ খতিয়ে দেখার আশ্বাস দেয় পুলিশ। অন্য দিকে সাংসদের এভাবে ধরনা আন্দোলনের কড়া সমালোচনা করছে জেলা তৃণমূল। করোনা আবহে পুলিশ যখন ভালো কাজ করছে তখন এভাবে ধরনা অনুচিত বলেই পাল্টা কটাক্ষ করছে তৃণমূল।

বিজেপি সাংসদ খগেন মূর্মুর অভিযোগ, দলীয় কর্মীদের মিথ্যে মামলায় ফাঁসাচ্ছে পুলিশ। জোর করে বিরোধীদের শাসকদলে যোগ দিতে বাধ্য করা হচ্ছে। পুলিশ বিরোধীদের মিথ্যে মামলায় হেনস্থা করছে । অথচ, অভিযোগ নিয়ে কথা বলতে গেলে ফোন ধরছেন না থানার আইসি। রাতে  দশ জন প্রতিনিধি নিয়ে হরিশ্চন্দ্রপুর থানায় অভিযোগ জানানোর জন্য ঢুকতে গেলে সাংসদকে বাধা দেয় পুলিশ। সর্বাধিক পাঁচ জনকে নিয়ে ভেতরে ঢোকার জন্য বলা হয়। এরপর ক্ষুব্ধ হয়ে  রাস্তায় বসে পড়েন সাংসদ। হরিশ্চন্দ্রপুরের তৃণমূল নেতা তথা মালদা জেলা পরিষদের পক্ষ মর্জিনা খাতুন পাল্টা বলেন, প্রচার পাওয়ার জন্য সাংসদ এমন কর্মসূচি নিয়েছেন। পুলিশকে যেভাবে উনি আক্রমণ করেছেন তা অসাংবিধানিক।

Published by: Arka Deb
First published: August 15, 2020, 7:21 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर