সকালে মোদির পর সন্ধ্যায় করোনার টিকা নিলেন অমিত শাহ, সুস্থ আছেন দু'জনেই

সকালে মোদির পর সন্ধ্যায় করোনার টিকা নিলেন অমিত শাহ, সুস্থ আছেন দু'জনেই

অমিত শাহ৷

ভ্যাকসিন নেওয়ার পর প্রাথমিকভাবে সুস্থই রয়েছেন অমিৎ শাহ। সুস্থ রয়েছেন প্রধানমন্ত্রীও

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: দ্বিতীয় দফার টিকাকরণের প্রথম সকালেই করোনার টিকা নিয়ে এই কর্মসূচির সুচনা করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। আর এদিন সন্ধ্যাতেই ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজটি নিলেন অমিত শাহ।

    এদিন সন্ধ্যায় গুরগাঁও-এর মেদান্ত হাসপাতালে যান শাহ। সেখানে করোনা টিকার প্রথম ডোজটি নেন তিনি। প্রধানমন্ত্রীর মোদির মতো কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীও গ্রহণ করেছেন ভারত বায়োটেকের তৈরি কোভ্যাক্সিন। জানা গিয়েছে, ভ্যাকসিন নেওয়ার পর প্রাথমিকভাবে সুস্থই রয়েছেন অমিৎ শাহ। সুস্থ রয়েছেন প্রধানমন্ত্রীও। যদিও নিয়মমত ২৪ ঘন্টা নজরদারি রাখা হবে টিকা নেওয়ার পর।

    গত অগস্ট মাসে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। ট্যুইট করে নিজেই সে কথা জানিয়ে ছিলেন তিনি। চিকিৎসকদের পরামর্শে হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার সিদ্ধান্ত নেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। গুরগাঁওয়ের মেদান্ত সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয় অমিত শাহকে। হাসপাতালের চিকিৎসকরা সেই সময় জানান, কোমর্বিডিটি রয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর। তাই তাঁকে নিয়ে ঝুঁকি অনেক বেশি। যদিও বেশ কয়েকদিন হাসপাতালে থাকার পর সুস্থ হয়ে বাড়ি ফেরেন তিনি। আজ সন্ধ্যায় ওই হাসপাতালেই করোনার টিকা নেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

    আজ থেকে গোটা দেশে শুরু হয়েছে সাধারণের জন্য টিকাকরণ কর্মসূচি। ৬০ বছরের উর্ধ্বে যাঁরা রয়েছেন তাঁদের করোনা টিকা দেওয়া হবে। দেশের প্রায় ১০,০০০ সরকারি হাসপাতালে হবে করোনা ভাইরাসের টিকাকরণ। সেখানে বিনামূল্যে বয়স্কদের টিকা দেওয়া হবে।

    টিকা নিতে পারবেন ৪৫ বছরের উর্ধ্বের কোমর্বিডি থাকা ব্যক্তিরাও। সেক্ষেত্রে অবশ্য প্রমাণ হিসেবে চিকিৎসকের সংশাপত্র প্রয়োজন। তবে বেসরকারি হাসপাতালে টিকা নিতে ২৫০ টাকা খরচ হবে বলে জানা গিয়েছে। তবে তার আগে আগে কো-উইন অ্যাপের মাধ্যমে নাম নথিভুক্ত করা জরুরি।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: