West Bengal Election 2021 : করোনা আবহে কমিশনে সর্বদলীয় বৈঠক, বিধি মেনে প্রচারে 'একসুর' সব রাজনৈতিক দলের

West Bengal Election 2021 : করোনা আবহে কমিশনে সর্বদলীয় বৈঠক, বিধি মেনে প্রচারে 'একসুর' সব রাজনৈতিক দলের

প্রতীকী ছবি৷

বিধি মেনে প্রচার পর্ব চালিয়ে যাওয়ার রাজনৈতিক দলগুলির প্রস্তাবে প্রকারন্তরে সায় দিল কমিশনও।

  • Share this:

    #কলকাতা: যাবতীয় করোনা বিধি মেনেই চলবে বিধানসভা নির্বাচনের প্রচার। অর্থাৎ করোনা আবহতেও ভোট প্রচার বন্ধ হবে না।হবে না ভার্চুয়াল প্রচারও।সর্বদলীয় বৈঠকের পর এমনটাই জানিয়ে দিল নির্বাচন কমিশন। অর্থাৎ বিধি মেনে প্রচার পর্ব চালিয়ে যাওয়ার রাজনৈতিক দলগুলির প্রস্তাবে প্রকারন্তরে সায় দিল কমিশনও। যদিও তৃণমূলের পক্ষ থেকে ভোটের বাকি পর্বগুলির সংযুক্তিকরণের যে প্রস্তাবে দেওয়া হয়েছিল তাতে মত দেয়নি কমিশন।

    করোনা পরিস্থিতিতে ভোটগ্রহণ, প্রচারের মতো বিষয়গুলি নিয়ে শুক্রবার বেদী ভবনে নির্বাচন কমিশনের ডাকে বৈঠকে হাজির ছিলেন রাজ্যের সবকটি রাজনৈতিক দলের প্রতিনিধিরা। এদিনের বৈঠকে তৃণমূল, বিজেপি, সংযুক্ত মোর্চা -- সবকটি রাজনৈতিক দলের প্রতিনিধিরাই অংশ নেন। তৃণমূল প্রথম থেকেই আট দফার ভোটের বিপক্ষে ছিল। করোনা আতঙ্ক বাড়ার পর তৃণমূল শিবির বারবারই চাইছিল দফা সংযুক্তিকরণ। তাতে সাধারণ মানুষের জীবনের ঝুঁকি কম।এই আবেদন জানিয়ে কমিশনকে চিঠি দেন খোদ তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু বৈঠকে এই আর্জিতে সহমত হয়নি নির্বাচন কমিশন। অন্যদিকে ভার্চুয়াল প্রচারের কমিশনের প্রস্তাবেও রাজি নয় কোনও রাজনৈতিক দল। সর্বদলীয় বৈঠকে এই বিষয়ে সবকটি দল ছিল ঐক্যমত। প্রচারের গণতান্ত্রিক অধিকার ক্ষুন্ন করতে রাজি নন কেউই।এমনটাই সূত্রের খবর। তাই শেষ পর্যন্ত কড়াভাবে বিধি নিষেধ মেনে, অর্থাৎ মাস্ক ও সামাজিক দূরত্ব মেনেই প্রচার চালানোর অনুমতি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কমিশন।

    সর্বদলীয় বৈঠক শেষে তৃণমূলের পক্ষ থেকে বৈঠকে যোগ দেওয়া প্রবীণ তৃণমূল নেতা পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, "আমরা বোঝাতে চেয়েছি তিনটি দফা একদিনে করা হলে মানুষের সংক্রমণের ভয় কম থাকবে।" অন্যদিকে ‌‌‌বিজেপির প্রতিনিধি স্বপন দাশগুপ্ত বলেন, "আমরা কমিশনকে বলেছি ভার্চুয়াল ভাবে প্রচার সম্ভব নয়। কারণ তাতে গণতান্ত্রিক ভাবে ভোটদানের বিষয়টি ক্ষতিগ্রস্থ হয়।" অন্যদিকে বৈঠকে সংযুক্ত মোর্চার প্রস্তাব ছিল ভোটগ্রহণে সতর্কতা বাড়ানো। সেই সতর্কতারই প্রথম পদক্ষেপ হিসেবে মোর্চা ইতিমধ্যেই বড় সভা না করার কথা ঘোষণা করেছে।

    অন্যদিকে করোনা নিয়ে শুক্রবার বেশ কিছু মন্তব্য করেছে কলকাতা হাইকোর্ট। ভোটপর্ব করোনা বিধি মেনে হচ্ছে কিনা তা নিয়ে আগেই প্রশ্ন করেছে আদালত। নির্বাচন কমিশনকে এই নিয়ে বিস্তারিত রিপোর্ট দিতে বলা হয়েছে।   পঞ্চম দফার নির্বাচন নিয়েও রিপোর্ট চেয়েছে হাইকোর্ট৷ শনিবার রয়েছে পঞ্চম দফার নির্বাচন৷ সেই নির্বাচন প্রক্রিয়া কীভাবে সম্পন্ন হচ্ছে তার বিস্তারিত রিপোর্টও তলব করা হয়েছে৷ আগামী সোমবারের মধ্যে সেই রিপোর্ট জমা দিতে বলা হয়েছে৷

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: