corona virus btn
corona virus btn
Loading

বাড়িতে স্বামী ক্যান্সার আক্রান্ত, রোজ হাসপাতালে যাচ্ছেন এই নার্স

বাড়িতে স্বামী ক্যান্সার আক্রান্ত, রোজ হাসপাতালে যাচ্ছেন এই নার্স
ঘরে বাইরে লড়াই নার্স সুচেতা গুহ-র।

সুচেতা দেবীর কথায় জেদ ঝরে। তিনি বলেন, "কর্মস্থলে গিয়ে রোগীদের সুস্থ করে তুলতে পারলে স্বামীকেও সুস্থ করে তুলতে পারব।"

  • Share this:

#রায়গঞ্জ: একাধারে গৃহবধূ, আবার পেশায় নার্স। দোটানা এখানেই শেষ নয়। বরং শুরু। কাজের সময়ে রোগীর করছেন, অন্য সময় শুশ্রুষা দিয়ে স্বামীকে আরোগ্যের পথে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার কাজ। বলা যায়, ক্যান্সার আক্রান্ত স্বামীকে বাঁচাতে ঘরে বাইরে কঠিন লড়াইয়ে নেমেছেন সেবিকা স্ত্রী। রায়গঞ্জ পুরসভার মাতৃসদনে কর্মরত নার্স সুচেতা গুহ৷ লড়াই হার মানাবে বড় যোদ্ধাদেরও।

অবশ্য আজ নতুন নয়, হাসপাতালে রোগীদের সেবার কাজ সেরে বাড়ি ফিরে স্বামীর দেখ ভাল করে চলেছেন বিগত পাঁচ বছর ধরে৷ আর্থিক অনটনের মাঝেই হাসি মুখে সংসারের হাল ধরেছেন রায়গঞ্জের কলেজপাড়ার বাসিন্দা সুচেতা গুহ।

২০১৫ সালে মারণ রোগ ক্যান্সারে আক্রান্ত হন সুচেতা দেবীর স্বামী রনজয় গুহ। চিকিৎসার জন্য ছুটে যান কলকাতার চিত্তরঞ্জন ক্যান্সার ইন্সটিটিউট হাসপাতালে। সেখানেই কেমোথেরাপি চলে দীর্ঘদিন ৷ এ দিকে ক্যান্সার আক্রান্ত হওয়ার পর থেকে কর্মহীন হয়ে পড়েন রনজয় গুহ। ফলে ঘরেই নয় শুশ্রুষার আদর্শকে হাতিয়ার করে বাইরেও শুরু হয় লড়াই।

সুচেতা দেবীর কথায় জেদ ঝরে। তিনি বলেন, "কর্মস্থলে গিয়ে রোগীদের সুস্থ করে তুলতে পারলে স্বামীকেও সুস্থ করে তুলতে পারব। এই মানসিকতা নিয়েই লড়াই চালিয়ে যাচ্ছি। বেতনের টাকায় সংসার চালিয়ে স্বামীর চিকিৎসার খরচ জোগাড় করতে অপারগ আমি। আত্মীয় পরিজন প্রথম অবস্থায় সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেও সরকারি কোনও সাহায্য এখনও পাইনি। পেশায় নার্স হয়ে স্বামীকে বিনা চিকিৎসায় ফেলা রাখা আমার পক্ষে সম্ভব নয়। তাই পরিশ্রম করে চলেছি। জানিনা কতদিন পারব।"

সুচেতার স্বামী রনজয় গুহ বলেন, "আগে ছোট একটি মুদিখানা দোকান চালাতাম। কিন্তু ক্যন্সারে আক্রান্ত হওয়ার পর চিকিৎসার জন্য বিপুল পরিমাণ টাকা খরচ হয়ে গিয়েছে। সেই থেকে দোকান বন্ধই রেখেছি।"

বিগত কিছুদিন থেকে কেমোথেরাপি নিতে না পারার কারণে শারীরিক ভাবে দুর্বল হয়ে পড়েছেন রণজিৎবাবু৷ বাড়ি থেকে বেরোনোর ক্ষমতাও হারিয়েছেন। ফলে পুরো সংসারের দায়িত্ব এখন সুচেতাদেবীর উপরে।

তবু চোখের আলো নেভে না সুচেতাদেবীর। তিনি যে পেশায় নার্স! সেবার আদর্শে পিছিয়ে আসা নেই।

Published by: BISWAJIT SAHA
First published: May 13, 2020, 6:15 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर