#Coronavirus: বিদেশ থেকে আসা সাতাশ  জন রাজ্যে ফিরতেই নজরবন্দি করা হল, করোনা সম্পর্কে জানতে তৈরি বিশেষ Helpline

#Coronavirus: বিদেশ থেকে আসা সাতাশ  জন রাজ্যে ফিরতেই নজরবন্দি করা হল, করোনা সম্পর্কে জানতে তৈরি বিশেষ Helpline

করোনা সম্পর্কে জানতে তৈরি বিশেষ Helpline

  • Share this:

#কলকাতা:  ভারতের বাইরে থেকে আসা সাতাশ জনকে নজরবন্দি করলো প্রশাসন। এ রাজ্যের কোন জেলায় এমন ঘটনা ঘটেছে! জেলা প্রশাসন জানিয়েছে, করোনা আটকাতেই এই বাড়তি সতর্কতা। তবে এতে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। অযথা আতঙ্ক ছড়ানো রুখতে সব সময় প্রচারও চালানো হচ্ছে।

 বিদেশে থেকে আসা সাতাশ জনকে নজরে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছে পূর্ব বর্ধমান জেলা প্রশাসন। তবে তারা কোথাকার বাসিন্দা বা কোন দেশ থেকে তারা এসেছেন সেসব তথ্য জানানো হয়নি। তাদের পরিচয়ও গোপন রাখা হয়েছে। জেলার প্রশাসনিক আধিকারিকরা জানান, তাঁদের প্রতি নজর রাখা হচ্ছে। তাঁরা জ্বর কাশি শ্বাসকষ্টে আক্রান্ত হচ্ছেন কিনা দেখা হচ্ছে। বিদেশে তাঁরা নিজেদের অজান্তেই  করোনা আক্রান্তের সংস্পর্শে এসে থাকতে পারেন। তাই এই বিশেষ সতর্কতা।

শুক্রবার পূর্ব বর্ধমানের  জেলা শাসক বিজয় ভারতী বিভিন্ন দফতরের আধিকারিক, বিডিও, স্বাস্থ্য দফতরের আধিকারিকদের নিয়ে করোনা মোকাবিলায় বৈঠক করেন। সেই বৈঠকে বেসরকারি হাসপাতাল ও নার্সিংহোমের প্রতিনিধিদেরও ডাকা হয়। বৈঠকে রাজ্য  স্বাস্থ্য দফতর প্রয়োজনীয় নির্দেশিকা সকলকে জানিয়ে দিয়ে তা মেনে চলার পরামর্শ দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন - #Coronavirus: খেলনার বাজারেও এবার আতঙ্ক, করোনার প্রকোপে মাথায় হাত ব্যবসায়ীদেরও

 জেলা শাসক জানান, মানুষ যাতে অযথা আতঙ্কিত না হন তা দেখা হচ্ছে। জেলা থেকে গ্রাম পর্যন্ত স্বাস্থ্য কর্মী ও আশা কর্মীদের সচেতনতার কাজে ব্যবহার করা হচ্ছে। এলাকায় কেউ তীব্র জ্বর, কাশি, হাঁচিতে আক্রান্ত হলে তাঁদের  আলাদাভাবে চিহ্নিত করার পাশাপাশি তাঁদের দ্রুত চিকিৎসার ব্যবস্থা করাতে বলা হয়েছে। বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল, কাটোয়া ও কালনা মহকুমা হাসপাতালে আইসোলেশন ওয়ার্ড চালু করা হয়েছে। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত  সন্দেহে কোনও রোগী এলে তাদের সেখানে ভর্তি করা হবে।

পূর্ব বর্ধমান জেলার পক্ষ থেকে করোনা মোকাবিলায় বিশেষ কন্ট্রোল রুম খোলা হয়েছে।  0342 2665092 এই নম্বরে ফোন করে করোনা সম্পর্কিত যাবতীয় পরামর্শ পাওয়া যাবে। জেলা প্রশাসন জানিয়েছে, এ রাজ্যে বা এ জেলায় এখনও কেউ করোনায় আক্রান্ত হয়নি। তবুও সেই ভাইরাসে কেউ আক্রান্ত হলে যাতে তা দ্রুত মোকাবিলা করা যায় তা নিশ্চিত করতেই প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

Saradindu Ghosh

First published: March 6, 2020, 8:07 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर