Union Budget 2021: এই ৭ সাধারণ ক্ষেত্রে কর কমার সম্ভাবনা কত দূর? বিশেষজ্ঞদের বিশ্লেষণ...

Union Budget 2021: এই ৭ সাধারণ ক্ষেত্রে কর কমার সম্ভাবনা কত দূর? বিশেষজ্ঞদের বিশ্লেষণ...

  • Share this:

#কলকাতা: প্যানডেমিক ও করোনা পরিস্থিতির জন্য একাধিক সমস্যার সম্মুখীন হয়েছে দেশ। লকডাউনের জেরে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে অর্থনীতি। সাধারণ মানুষের অর্থনৈতিক অবস্থাতেও পরিবর্তন এসেছে। আর কিছু দিনের মধ্যেই ২০২১-২০২২ অর্থবর্ষের বাজেট। এই বছর সাধারণ মানুষের কথা ভেবে বাজেট পরিকল্পনা করা হবে বলে আশাবাদী সকলে। মধ্যবিত্তের কথা মাথায় রেখে মোদী সরকার এবারের বাজেটে কিছু বিশেষ ব্যবস্থা নিতে পারে বলেও আশা করা হচ্ছে।

দেখে নেওয়া যাক এ বছর বাজেট থেকে কী কী আশা করা যেতে পারে-

*সরকার কর মকুবের সীমা বাড়াতে পারে: আর কিছু দিন পরই ২০২১-২০২২ অর্থবর্ষের বাজেট। আশা করা যাচ্ছে, সরকার কর মকুবের সীমা বাড়াতে পারে। তবে, যাঁদের ন্যূনতম আয় ২.৫ লক্ষ টাকা থেকে ৩.৫ লক্ষ টাকার মধ্যে, এই কর মকুবের সীমা তাঁদের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য হবে কি না সে বিষয়ে কোনও নিশ্চয়তা নেই।

*ছাড়ের সীমা বাড়াতে পারে: 80C ধারা অনুযায়ী, বিভিন্ন ধরনের বিনিয়োগের ক্ষেত্রে বা আয়কর সঞ্চয়ের বিভিন্ন স্কিমের ক্ষেত্রে ২০১৪ -১৫ সাল থেকে আজ পর্যন্ত ছাড়ের সীমা একই রয়েছে। অর্থাৎ দেড় লক্ষ টাকাই রয়েছে। বছর বছর মুদ্রাস্ফীতির কথা বিবেচনা করার পর এই ছাড়ের সীমা বাড়তে পারে এবং আড়াই লক্ষ টাকা পর্যন্ত হতে পারে।

*লিভ ট্র্যাভেল কনসেশন জারি রাখতে পারে: ২০২০ সালে প্যানডেমিকের জেরে অনেকেই ঘুরতে যেতে পারেননি। তাঁদের ক্ষেত্রে সরকারের তরফে লিভ ট্র্যাভেল কনসেশন চালু করেছিল। যাঁরা ঘুরতে যেতে পারেননি তাঁরাও GST-র আওতায় আসা যে কোনও জিনিস কেনাকাটায় ১২ শতাংশ পর্যন্ত সুবিধে পেতে পারেন। এবং পেমেন্টটি করতে হবে ডিজিটাল মাধ্যমে। এই স্কিমটিই ২০২১-২০২২ অর্থবর্ষেও জারি রাখতে পারে সরকার।

*বেশি ট্যাক্স ইনসেনটিভ দেওয়া হতে পারে হাউজ প্রপার্টিতে: শোনা যাচ্ছে হাউজিং সেগমেন্টেও বড়সড় সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে আয়কর দফতরের তরফে। এক্ষেত্রে তুলনামূলক বেশি ট্যাক্স ইনসেনটিভ দেওয়া হতে পারে। আর সেটাই আশাই করছে সাধারণ মানুষ!

*স্বাস্থ্যবিমার সীমা বাড়তে পারে: প্যানডেমিকের জেরে চিকিৎসা পরিষেবায় আমূল পরিবর্তন এসেছে। বেড়েছে খরচা। ফলে, আশা করা যাচ্ছে, বর্তমানে সিনিয়র সিটিজেনদের জন্য যে ২৫ হাজার টাকার স্কিম রয়েছে, তা বেড়ে ৫০ হাজার হতে পারে। এই টাকা চিকিৎসাসংক্রান্ত সমস্ত খরচায় ব্যবহার করা যেতে পারে।

*আকর্ষণীয় পেনশন স্কিম মিলতে পারে: ন্যাশনাল পেনশন স্কিম অসবর পরবর্তী সময়ের অন্যতম ভালো সঞ্চয় ক্ষেত্র হলেও এই স্কিম অনেকেই বেছে নেন না। 80CCD(1B) ধারার অন্তর্ভুক্ত এই স্কিমে ছাড়ের সর্বোচ্চ সীমা যদি ভাগ করে দেওয়া হয়, তা হলে তা ৫০ হাজার টাকা থেকে এক লক্ষ টাকা প্রতি বছর হতে পারে। এবং এতে অনেকেই এই স্কিম চালু করতে পারেন।

*লং টার্ম ক্যাপিটাল গেইনে ছাড় মিলতে পারে।

*লং টার্ম ক্যাপিটাল গেইনের হারও ৫ শতাংশ পর্যন্ত কমানো হতে পারে।

Published by:Shubhagata Dey
First published: