• Home
  • »
  • News
  • »
  • business
  • »
  • Budget 2021: ১৫ ও ২০ বছরে একবার, ফিটনেস টেস্ট করাতে হবে যে কোনও গাড়ির

Budget 2021: ১৫ ও ২০ বছরে একবার, ফিটনেস টেস্ট করাতে হবে যে কোনও গাড়ির

কমার্সিয়াল গাড়ির ক্ষেত্রে প্রতি ১৫ বছরে একবার গাড়ির ফিটনেস পরীক্ষা করাতে হবে এবং ব্যক্তিগত গাড়ি হলে ২০ বছরে একবার এই পরীক্ষা করাতে হবে

কমার্সিয়াল গাড়ির ক্ষেত্রে প্রতি ১৫ বছরে একবার গাড়ির ফিটনেস পরীক্ষা করাতে হবে এবং ব্যক্তিগত গাড়ি হলে ২০ বছরে একবার এই পরীক্ষা করাতে হবে

কমার্সিয়াল গাড়ির ক্ষেত্রে প্রতি ১৫ বছরে একবার গাড়ির ফিটনেস পরীক্ষা করাতে হবে এবং ব্যক্তিগত গাড়ি হলে ২০ বছরে একবার এই পরীক্ষা করাতে হবে

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: সংসদে বাজেট পেশ করছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন (Nirmala Sitharaman)। যানবাহন নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ ঘোষণা করলেন তিনি। বললেন, পরিবেশবান্ধব গাড়ির প্রচার বাড়াতে। পাশাপাশি ১৫ বছর ও ২০ বছরে গাড়ির ফিটনেস টেস্ট করানোর কথা ঘোষণা করলেন তিনি। কমার্সিয়াল গাড়ির ক্ষেত্রে প্রতি ১৫ বছরে একবার গাড়ির ফিটনেস পরীক্ষা করাতে হবে এবং ব্যক্তিগত গাড়ি হলে ২০ বছরে একবার এই পরীক্ষা করাতে হবে।

২৯ জানুয়ারি সংসদে বাজেট অধিবেশন শুরু হয়। ওই দিনই ইকোনমিক সার্ভে পেশ হয় সংসদে। তার পর শনিবার-রবিবার শেষে আজ বাজেট পেশ। সকাল থেকেই টেলিভিশনের দিকে তাকিয়ে ব্যবসায়ী থেকে চাকরিজীবী, পড়ুয়া থেকে সাধারণ মানুষ সকলে। এবার বাজেটে লাল বই-খাতা নয়, ট্যাব হাতে দেখা যায় কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীকে। তাঁর সঙ্গে রয়েছেন অর্থমন্ত্রকের রাষ্ট্রমন্ত্রী অনুরাগ ঠাকুর (Anurag Thakur)।

আজ সকালে প্রথমে রাষ্ট্রপতি ভবনে যান তাঁরা। তার পর সেখান থেকে সংসদে পৌঁছান। বাজেটের আগে সংসদে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীসভার বৈঠক শুরু হয়। তার পরই বাজেট পেশ করতে শুরু করেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী।

করোনা পরবর্তী এই বছরের বাজেট নিয়ে একাধিক মানুষের একাধিক চাওয়া-পাওয়া রয়েছে। কেউ ট্যাক্সে ছাড় চাইছেন, তো কেউ চাইছেন কোভিড পরবর্তী পর্যায়ে ট্যাক্স থেকে অব্যাহতি। এদিকে বাজেটের আগেই কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, একদম আলাদা ধরনের বাজেট হতে চলেছে ২০২১-২২ অর্থবর্ষে।

বাজেট-সংক্রান্ত একাধিক ঘোষণা ইতিমধ্যেই হয়ে গিয়েছে। তার মধ্যেই রয়েছে যানবাহন সংক্রান্ত এই ঘোষণাটি। যা বলছে, ১৫ বছর ও ২০ বছরে একবার গাড়ির ফিটনেস টেস্ট করাতে হবে অর্থাৎ রাস্তায় গাড়িটি চলতে পারে কি না তা পরীক্ষা করা হবে। পরীক্ষায় পাশ করলেই গাড়িটি চলার অনুমতি পাবে। এক্ষেত্রে কর্মাসিয়াল গাড়িকে ১৫ বছরে একবার এই পরীক্ষা করাতে হবে এবং ব্যক্তিগত গাড়িকে ২০ বছরে একবার।

কবে থেকে এটি কার্যকর হচ্ছে তা জানা যায়নি। এই সংক্রান্ত আরও কোনও ঘোষণা হয় কি না বর্তমানে সেই দিকেই তাকিয়ে সকলে।

এছাড়াও টেক্সটাইল, জল, করোনা মোকাবিলায় বরাদ্দ ইত্যাদি সম্পর্কে ইতিমধ্যেই একাধিক ঘোষণা করেছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী!

Published by:Ananya Chakraborty
First published: