হোম /খবর /ব্যবসা-বাণিজ্য /
নতুন ব্যবসা শুরু করছেন! সফল হতে মেনে চলুন এই টিপসগুলি

নতুন ব্যবসা শুরু করছেন! সফল হতে মেনে চলুন এই টিপসগুলি

প্রথমবার যাঁরা ব্যবসায় নামছেন, তাঁদের জন্য এখানে রইল কিছু টিপস।

  • Share this:

#কলকাতা: স্টার্ট আপের দুনিয়ায় জোয়ার এসেছে। নিত্য নতুন ব্যবসার পরিকল্পনা নিয়ে বাজারে ঝাঁপাচ্ছে যুব সমাজ। ‘চাকরিতে আর ক’টাকা বেতন, লাভ তো ব্যবসাতেই’, পুঁজি এই আপ্তবাক্য। সব ব্যবসাই যে লাভের মুখ দেখছে, এমনটা নয়। তবে সঠিক পথে এগোলে ফুলে ফেঁপে উঠতেও সময় লাগছে না। প্রথমবার যাঁরা ব্যবসায় নামছেন, তাঁদের জন্য এখানে রইল কিছু টিপস।

প্যাশন:

যে ব্যবসাই হোক না কেন ভালবাসতে হবে। চাই তীব্র প্যাশন। একটা ব্যবসা শুরু করতে এবং তাকে সফলতার পথে নিয়ে যেতে প্রচুর সময় এবং পরিশ্রম লাগে। তাই কাজকে উপভোগ করতে হয়। লেগে থাকতে হয়। এটাই সাফল্যের মুখ দেখাবে।

আরও পড়ুন: SIP-র কিস্তি দিতে ভুলে গেছেন! এই সমস্যায় পড়তে পারেন আপনি

চাকরি থাক:

টাকা ছাড়া ক’দিন চলে! বেশিদিন নয়। নতুন ব্যবসা লাভের মুখ দেখতে সময় লাগে। ততদিন কী করে চলবে! তাই হুট করে চাকরি ছাড়া উচিৎ নয়। পকেটের টাকা ব্যবসায় খাটুক। কিন্তু উপার্জনের আর একটা রাস্তাও থাক। ব্যবসা দাঁড়িয়ে গেলে চাকরি ছাড়তে কতক্ষণ!

আরও পড়ুন: ডিসেম্বর থেকে সব নতুন ব্যবস্থা! কী করা যাবে, কী করা যাবে না, দেখে নিন এক নজরে

একা নয়:

ব্যবসা শুরুর আগে এবং পরে সাপোর্ট দরকার হয়। সেটা বন্ধু হতে পারে কিংবা পরিবারের সদস্য। যাঁকে বিশ্বাস করা যায়, ব্যবসা সম্পর্কে যাঁর স্পষ্ট ধারণা রয়েছে এমন কাউকে যুক্ত করতে হবে। একজন পরামর্শদাতা পেলে আরও ভাল। ব্যবসা শুরুর জন্য সরকার থেকে ঋণও দেওয়া হয়। সেখানেও আবেদন করা যায়।

ব্যাবসায়িক পরিকল্পনা:

ব্যবসা শুরুর আগে নির্দিষ্ট পরিকল্পনা থাকা প্রয়োজন। কাঁচামাল কোথা থেকে কিনতে হবে, কোথায় বিক্রি, খরিদ্দার কারা হতে পারে, ব্যবসার টাকা কোথা থেকে আসবে – সব কিছু আগে থেকে ছকে রাখতে হবে। এর সঙ্গে চাই প্ল্যান বি। অর্থাৎ এ ভাবে যদি ব্যবসা না দাঁড়ায় তা হলে আর কোন উপায়ে চেষ্টা করা যায়।

পেশাদারদের সাহায্য:

ব্যবসা শুরু করা মানেই এই নয় সব বিষয়ে বিশেষজ্ঞ হতে হবে। হওয়া সম্ভবও নয়। হিসাবরক্ষক না হলে নিয়োগ করতে হবে, কোনও চুক্তি পত্র লিখতে চাইলে আইনজীবীর সাহায্য নিতে হবে। এতে সময় এবং পরিশ্রম দুইই বাঁচবে।

আয়কর:

ব্যবসার রেজিস্ট্রেশন, জিএসটি বা পিএসটি চার্জ করতে হবে কিনা আগে থেকে জানতে হবে। আয়কর পরিস্থিতি সম্পর্কে স্বচ্ছ ধারণা থাকা চাই। না হলে পরে পুরো ব্যাপারটা জগাখিচুড়ি পাকিয়ে যেতে পারে।

Published by:Dolon Chattopadhyay
First published:

Tags: Business Tips