সাবধান! ব্যাঙ্কের লকারে টাকা রাখছেন? অবশ্যই দেখুন ভিডিওটি

সাবধান! ব্যাঙ্কের লকারে টাকা রাখছেন? অবশ্যই দেখুন ভিডিওটি
কোনও ব্যাক্তি তাঁর ব্যাঙ্কের লকারে প্রায় দু’লক্ষ কুড়ি হাজার টাকা নগদ রেখেছিলেন। যখন তিনি ব্যাঙ্কের লকার খুলে দেখেন, পোকায় খেয়ে ফেলেছে টাকাগুলো

কোনও ব্যাক্তি তাঁর ব্যাঙ্কের লকারে প্রায় দু’লক্ষ কুড়ি হাজার টাকা নগদ রেখেছিলেন। যখন তিনি ব্যাঙ্কের লকার খুলে দেখেন, পোকায় খেয়ে ফেলেছে টাকাগুলো

  • Share this:

    #বরোদা:  অনেকেই তাঁদের মূল্যবান সম্পদ ব্যাঙ্কের লকারে রাখেন। সব সময় বাড়িতে টাকা বা সোনার গয়না বা গুরুত্বপূর্ণ নথি রাখা সম্ভব হয় না। তাই ব্যাঙ্কের লকার হল সবচেয়ে সুরক্ষিত জায়গা। অন্তত এত দিন তাই ছিল। আপনিও যদি ব্যাঙ্কের লকার ব্যবহার করেন, তাহলে এখনই সাবধান হয়ে যান। সম্প্রতি একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে যা দেখে মনে হচ্ছে কোনও ব্যাঙ্কের লকারে রাখা অর্থ বা মূল্যবান সম্পদ আর নিরাপদে নেই। গুজরাটের ভদোদরার কাছে একটি বাঙ্কের ঘটনায় বাক্যহারা হয়েছেন সকলে।

    একটি সংবাদ মাধ্যম অনুযায়ী, ব্যাঙ্ক অব বরোদার প্রতাপ নগর শাখায় একজন ব্যাক্তি তাঁর ব্যাঙ্কের লকারে প্রায় দু’লক্ষ বিশ হাজার টাকা নগদ রেখেছিলেন। যখন তিনি ব্যাঙ্কের লকার খুলে টাকা বের করতে যান, দেখেন তাঁর জমানো পুঁজি আর নেই। পোকায় খেয়ে ফেলেছে টাকাগুলো। এই ঘটনা দেখে সকলেই তাজ্জব হয়েছে।আপনিও দেখুন সেই ভিডিওটি---


    বিষয়টি ওই ব্যাক্তি ব্যাঙ্ক ম্যানেজারকে জানান। তিনি অভিযোগ তোলেন, সমস্ত টাকা তাঁকে ফিরিয়ে দিতে হবে। এদিকে, ভিডিওটি দেখার পর অনেকেই ব্যাঙ্কের সুরক্ষা ব্যবস্থা নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন। অন্যদিকে, আরবিআই-এর তরফে বলা হয়েছে ব্যাঙ্ক এর জন্য কোনও ভাবে দায়ী নয়। লকারে রাখা সামগ্রীর জন্য ব্যাঙ্কগুলি কোনওভাবেই দায়বদ্ধ নয়। এমনকি চুরি, ছিনতাই বা অনুরূপ অপ্রত্যাশিত ঘটনার জন্য ব্যাঙ্ককে দায় করা যাবে না। যেহেতু ওই ব্যাক্তি লকারে নগদ রেখেছিলেন, তাই ব্যাঙ্ক এই বিষয় দায়ী নয়।

    উল্লেখ্য, ব্যাঙ্ক গুলি কিন্তু লকারের জন্য বার্ষিক ভাড়া আদায় করে। লকারের সাইজ এবং ব্যাঙ্ক ব্রাঞ্চের উপর নির্ভর করে লকারের ভাড়া কত হবে! যেরকম দেশের সবচেয়ে বড় রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া এবং ইউনিয়ন ব্যাঙ্ক এর মতন সরকারি প্রতিষ্ঠান গুলির বার্ষিক ভাড়া জিএসটি সহ ১ হাজার টাকা থেকে ৮ হাজার টাকার মধ্যে। সেখানে বেসরকারি ব্যাঙ্কগুলির লকারে ভাড়া বার্ষিক ১৫ হাজার টাকা থেকে ২২ হাজার টাকা পর্যন্ত।

    ওই ব্যাক্তির সঙ্গে ব্যাঙ্কের কর্তৃপক্ষরা কথাবার্তা বলছেন, এই ঘটনাটির পুনরাবৃত্তি যাতে না ঘটে সেইদিকেও নজর দেওয়া হচ্ছে এবং সমাধানে আসার চেষ্টা করা হচ্ছে। তাই আপনি যদি ব্যাঙ্কে টাকা রেখে থাকেন তাহলে এখনই সাবধান হয়ে যান। নগদ রাখার থেকে ব্যাঙ্কের লকারে গয়না রাখা বেশি সুরক্ষিত। গুরুত্বপূর্ণ নথির ক্ষেত্রেও একই ঘটনা ঘটতে পারে।

    Published by:Somosree Das
    First published: