corona virus btn
corona virus btn
Loading

সোনার দামে রেকর্ড বৃদ্ধি! বাজার আরও চড়ার পূর্বাভাস

সোনার দামে রেকর্ড বৃদ্ধি! বাজার আরও চড়ার পূর্বাভাস

অনুমান করা হচ্ছে, আগামী ৩ থেকে ৫ মাসের মধ্যে আন্তর্জাতিক বাজারে ২ হাজার ডলার প্রতি আউন্স হতে চলেছে সোনার দাম ৷

  • Share this:
রেকর্ড দাম বৃদ্ধি সোনার ৷ ক্রমেই ৫০ হাজারের ঘর ছুঁই ছুঁই হতে চলেছে সোনার দাম। ২০১১ সালের রেকর্ড ভেঙে দ্রুত গতিতে বেড়ে চলেছে সোনার দাম ৷ এই বছর সোনার দাম বাড়ার পিছনে একাধিক কারণ রয়েছে ৷ সিটিগ্রুপ ইন্ক(Citigroup Inc.) অনুযায়ী, আর্থিক নীতি, রিয়েল গোল্ডে কমতি, এক্সচেঞ্জ ট্রেডেড ফান্ডে রেকর্ড ইনফ্লো ও অ্যাসেট অ্যালোকেশনে মূল্য বৃদ্ধি সোনার বাড়ার পিছনে মূল কারণ ৷ আগামী ৬ থেকে ৯ মাসে আরও বাড়বে দাম এবং রেকর্ড স্তরে পৌঁছে যাবে সোনার দাম বলে মনে করা হচ্ছে ৷ অনুমান করা হচ্ছে, আগামী ৩ থেকে ৫ মাসের মধ্যে আন্তর্জাতিক বাজারে ২ হাজার ডলার প্রতি আউন্স হতে চলেছে সোনার দাম ৷ রেকর্ড দাম বৃদ্ধি সোনার ৷ ক্রমেই ৫০ হাজারের ঘর ছুঁই ছুঁই হতে চলেছে সোনার দাম। ২০১১ সালের রেকর্ড ভেঙে দ্রুত গতিতে বেড়ে চলেছে সোনার দাম ৷ এই বছর সোনার দাম বাড়ার পিছনে একাধিক কারণ রয়েছে ৷ সিটিগ্রুপ ইন্ক(Citigroup Inc.) অনুযায়ী, আর্থিক নীতি, রিয়েল গোল্ডে কমতি, এক্সচেঞ্জ ট্রেডেড ফান্ডে রেকর্ড ইনফ্লো ও অ্যাসেট অ্যালোকেশনে মূল্য বৃদ্ধি সোনার বাড়ার পিছনে মূল কারণ ৷ আগামী ৬ থেকে ৯ মাসে আরও বাড়বে দাম এবং রেকর্ড স্তরে পৌঁছে যাবে সোনার দাম বলে মনে করা হচ্ছে ৷ অনুমান করা হচ্ছে, আগামী ৩ থেকে ৫ মাসের মধ্যে আন্তর্জাতিক বাজারে ২ হাজার ডলার প্রতি আউন্স হতে চলেছে সোনার দাম ৷ সোনার পাশাপাশি দাম বাড়তে চলেছে রুপোরও বলে মনে করছেন মার্কেট বিশেষজ্ঞরা ৷ সিটি গ্রুপের তরফে জানানো হয়েছে, করোনা ভাইরাসের জেরে গোটা বিশ্বে যে আর্থিক অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে তার জন্য সোনার দাম রেকর্ড স্তরে পৌঁছে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে ৷ সোনার পাশাপাশি দাম বাড়তে চলেছে রুপোরও বলে মনে করছেন মার্কেট বিশেষজ্ঞরা ৷ সিটি গ্রুপের তরফে জানানো হয়েছে, করোনা ভাইরাসের জেরে গোটা বিশ্বে যে আর্থিক অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে তার জন্য সোনার দাম রেকর্ড স্তরে পৌঁছে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে ৷ ২০১১ সালের পরে স্পট গোল্ডে এ বছর ১১ শতাংশ বৃদ্ধি হয়েছে ৷ করোনা ভাইরাসের জেরে আর্থিক অনিশ্চয়তা তৈরি হয়েছে ৷ বর্তমান পরিস্থিতিতে মুদ্রাস্ফীতির আশঙ্কায় নিরাপদ লগ্নি হিসেবে সোনায় বিনিয়োগের প্রবণতা বাড়তে দেখা গিয়েছে। ২০১১ সালের পরে স্পট গোল্ডে এ বছর ১১ শতাংশ বৃদ্ধি হয়েছে ৷ করোনা ভাইরাসের জেরে আর্থিক অনিশ্চয়তা তৈরি হয়েছে ৷ বর্তমান পরিস্থিতিতে মুদ্রাস্ফীতির আশঙ্কায় নিরাপদ লগ্নি হিসেবে সোনায় বিনিয়োগের প্রবণতা বাড়তে দেখা গিয়েছে। সোমবার দিল্লির সরাফা বাজারে ১০ গ্রাম সোনার দাম ছিল ৪৯৯১৬ টাকা ৷ রুপোর দাম ছিল ৫৩৯৪৮ টাকা প্রতি কিলোগ্রাম ৷ আন্তর্জাতিক বাজারে রুপোর দাম ছিল ১৯.৩২ ডলার প্রতি আউন্স ৷ সোনার দাম ছিল ১৮০৯ ডলার প্রতি আউন্স ৷ গত ৬ সপ্তাহে লাগাতার দাম বেড়েছে এই দুই ধাতুর ৷ ভারতে সোনার দাম প্রভাবিত হয় বিশ্ববাজারের ওঠানামা এবং মার্কিন ডলারের তুলনায় ভারতীয় টাকার মূল্যের উপরে।    সোমবার দিল্লির সরাফা বাজারে ১০ গ্রাম সোনার দাম ছিল ৪৯৯১৬ টাকা ৷ রুপোর দাম ছিল ৫৩৯৪৮ টাকা প্রতি কিলোগ্রাম ৷ আন্তর্জাতিক বাজারে রুপোর দাম ছিল ১৯.৩২ ডলার প্রতি আউন্স ৷ সোনার দাম ছিল ১৮০৯ ডলার প্রতি আউন্স ৷ গত ৬ সপ্তাহে লাগাতার দাম বেড়েছে এই দুই ধাতুর ৷ ভারতে সোনার দাম প্রভাবিত হয় বিশ্ববাজারের ওঠানামা এবং মার্কিন ডলারের তুলনায় ভারতীয় টাকার মূল্যের উপরে।
Published by: Dolon Chattopadhyay
First published: July 21, 2020, 9:41 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर