• Home
  • »
  • News
  • »
  • business
  • »
  • Mumbai: ওরলিতে ১৮৫ কোটির বাংলো! খবরের শিরোনামে এই ভারতীয় ব্যবসায়ী...

Mumbai: ওরলিতে ১৮৫ কোটির বাংলো! খবরের শিরোনামে এই ভারতীয় ব্যবসায়ী...

২০ বর্গফুটের বাংলো

২০ বর্গফুটের বাংলো

Mumbai : বেসমেন্ট এবং গ্রাউন্ড ফ্লোর ছাড়াও বাংলোটিতে রয়েছে ৬টি তলা। আয়তনে সেটি প্রায় ২০ হাজার বর্গফুট।

  • Share this:

#মুম্বই: গল্প নয়, সত্যি ঘটনা। ১৮৫ কোটি টাকা দিয়ে বাংলো কিনলেন এক ব্যবসায়ী। চমকে উঠলেও ঘটনাটি সম্পূর্ণ সত্যি। ইতিমধ্যে বাংলোটির রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। মুম্বইয়ের (Mumbai) ওরলি (Worli) এলাকায় সমুদ্র লাগোয়া ওই বাংলোটি। ৬ তলা ওই বাংলোতে যাঁরা থাকবেন তাঁরা বাংলো থেকে সরাসরি সমুদ্র দেখতে পারবেন।

কে কিনেছেন-

হরি কৃষ্ণ এক্সপোর্ট প্রাইভেট লিমিটেডের (Hari Krishna Exports Pvt Ltd) কর্তা সাবজি ভাই ধোলাকিয়ার (Savji Dholakia) ছোট ভাই ঘনশ্যামভাই ধানঝিভাই ধোলাকিয়ার (Ghanshyambhai Dhanjibhai Dholakia) নামে বাংলোটি কেনা হয়েছে। বাংলোটি রেজিস্ট্রেশন করা হয়েছে হরি কৃষ্ণ এক্সপোর্ট প্রাইভেট লিমিটেডের নামে। এই বাংলোতে মোট ১৫টি অ্যাপার্টমেন্ট রয়েছে। চুক্তি করা হয়েছে এসার গ্রুপের (Essar Group) সঙ্গে।

বেসমেন্ট এবং গ্রাউন্ড ফ্লোর ছাড়াও বাংলোটিতে রয়েছে ৬টি তলা। আয়তনে সেটি ১৯ হাজার ৮৮৬ স্কোয়ার ফুট।

একটি বেসরকারি সংস্থা যারা পুরো ডিলটি সম্পর্কে যাবতীয় তথ্য জোগাড় করতে পেরেছে তারা জানিয়েছে ৩০ জুলাই ২০২১ বাংলোটির রেজিস্ট্রেশন হয়। এবং দুদফায় ১৮৫ কোটি টাকা মেটানো হয়। ওই সংস্থার অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা সন্দীপ রেড্ডি জানিয়েছেন, ওই বাংলোটি মুম্বইয়ের অন্যতম প্রধান এলাকায়। সেখানে ইতিমধ্যে প্রায় সমস্ত বাংলো বিক্রি হয়ে গেছে। এখনও যেগুলি বাকি আছে সেগুলি প্রচুর টাকা দিয়ে হলেও কিনে নিচ্ছেন অনেকে।

প্রথমে বাংলোটির ১৩৪৯ স্কয়্যার ফুটের জন্য ৪৭ কোটি টাকা মেটানো হয়েছে। তার সঙ্গে ৫ শতাংশ স্ট্যাম্প ডিউটি দেওয়া হয়। এবং পরের ধাপে ১৩৮ কোটি টাকা মেটানো হয়। যেখানে ৬ শতাংশ হারে স্ট্যাম্প ডিউটি জমা করা হয়। পুরো টাকার উপর ১ শতাংশ সেস জমা করা হয়েছে। যার অর্থমূল্য ১.৩৮ কোটি টাকা।

নিজেদের থাকার জন্য বাংলো কিনলেও এর আগেও কর্মীদের বিভিন্ন উপহার দিয়েছে সংস্থার কর্নধার ঘনশ্যামভাই। ২৫ বছর তাঁদের সংস্থায় কাজ করায় তাঁদের ৩ কর্মীকে মার্সেডিজ বেঞ্জ উপহার দিয়েছেন। যেগুলির বাজারদর প্রায় ৩ কোটি টাকা।

সংস্থার ওয়েবসাইট থেকে জানা গেছে বিশ্বব্যাপী হীরের ব্যবসা করে তারা। একাধিক নামী ব্র্যান্ডের অধিকারী। জানা গিয়েছে, খনি থেকে হীরে তুলে তা ব্যবহারযোগ্য করা থেকে শুরু করে হীরের গয়না প্রস্তুত পর্যন্ত পুরো কাজটাই তাদের সংস্থা করে। বর্তমানে ৭০টি দেশে তারা হীরে পাঠায়।

Published by:Sanjukta Sarkar
First published: