• Home
  • »
  • News
  • »
  • business
  • »
  • MUKESH AMBANI GIVES STRESS ON MORE PRODUCTION OF CLEAN ENERGY AT INTERNATIONAL CLIMATE SUMMIT DMG

Mukesh Ambani at International Climate Summit: শক্তির উৎপাদনে স্বনির্ভর হবে ভারত, জলবায়ু শীর্ষ সম্মেলনে জানালেন মুকেশ আম্বানি

রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান ও এমডি মুকেশ আম্বানি৷

পরিবেশবান্ধব শক্তির উৎপাদনে ৭৫ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগের কথা ঘোষণা করেছে রিলায়েন্স (Mukesh Ambani at International Climate Summit)৷

  • Share this:

    #মুম্বাই:  শক্তির উৎপাদনে স্বনির্ভর হয়ে উঠবে ভারত৷ আন্তর্জাতিক জলবায়ু শীর্ষ সম্মেলনে এমনই দাবি করলেন রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান ও এমডি মুকেশ আম্বানি৷ একই সঙ্গে তিনি জানিয়েছেন, পরিবেশবান্ধব শক্তির উৎপাদন বৃদ্ধিতে আরও বেশি করে জোর দেওয়া উচিত৷

    পরিবেশবান্ধব শক্তির উৎপাদনে ৭৫ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগের কথা ঘোষণা করেছে রিলায়েন্স৷ তার পরই ক্লিন এনার্জি ক্ষেত্রে আরও বেশি করে জোর দেওয়ার গুরুত্ব তুলে ধরলেন মুকেশ আম্বানি৷ তিনি বলেন, 'শক্তির উৎপাদনের ক্ষেত্রে ভারত স্বনির্ভর হয়ে ওঠার লক্ষ্যমাত্রা ছুঁয়ে ফেলবে৷ জলবায়ু পরিবর্তন গোটা বিশ্বের কাছেই উদ্বেগের বিষয়৷ পরিবেশবান্ধব শক্তির উৎপাদনে আমাদের আরও বেশি করে জোর দিতে হবে৷'

    গত বছরই রিলায়েন্সের তরফে জানানো হয়েছিল, পরিবেশ রক্ষার কথা মাথায় রেখে ২০৩৫ সালের মধ্যে সংস্থা কার্বন নির্গমনের মাত্রাকে শূন্যে নামিয়ে আনার লক্ষ্য নিয়েছে৷

    মুকেশ আম্বানি বলেন, 'জীব ভষ্মের উৎস থেকে তৈরি হওয়া শক্তির উপর নির্ভরতা কাটিয়ে পুনর্ব্যবহার যোগ্য শক্তির উৎপাদনে আত্ম নির্ভর হতে ভারত প্রতিজ্ঞাবদ্ধ৷ জলবায়ু রক্ষার স্বার্থে গোটা বিশ্ব যে লক্ষ্যে এগোচ্ছে, তাতে পূর্ণ অবদান রাখবে ভারত৷ '

    একই সঙ্গে জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে পৃথিবী যে বিপদের মুখে দাঁড়িয়ে এবং মানুষের জীবনে যে নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে, তাও তুলে ধরেন রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান৷ মুকেশ আম্বানি মনে করিয়ে দেন, শুধু কার্বন নির্গমণ কমালেই চলবে না, বরং দ্রুততার সঙ্গে পরিবেশবান্ধব এবং পুনর্ব্যবহারযোগ্য শক্তির উৎপাদনের পরিমাণ বৃ্দ্ধির উপরে নজর দিতে হবে৷

    কিছুদিন আগে রিলায়েন্সের বার্ষিক সাধারণ সভাতেই সংস্থার তরফে পরিবেশবান্ধব শক্তির উৎপাদনের সঙ্গে যুক্ত ব্যবসায় ৭৫ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগের কথা জানানো হয়েছিল৷ মূলত সৌর শক্তি এবং  পরিবেশবান্ধব হাইড্রোজেন উৎপাদনে বিপুল বিনিয়োগকেই পাখির চোখ করেছে সংস্থা৷ সৌর শক্তি কেন্দ্রিক, স্টোরেজ ব্যাটারি, গ্রিন হাইড্রোজেন এবং ফুয়েল সেল ব্যাটারি উৎপাদন কেন্দ্রিক চারটি বৃহৎ কারখানা তৈরির পরিকল্পনা রয়েছে সংস্থার৷ এর ফলে হাইড্রোজেনের সাহায্যে মোবাইল ব্যবহারও সম্ভব হব৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: