Home /News /business /
Post Office Savings Scheme: পোস্ট অফিসের এই স্কিমে প্রতিদিন ৫০ টাকা বিনিয়োগে মিলবে ৩৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত রিটার্ন!

Post Office Savings Scheme: পোস্ট অফিসের এই স্কিমে প্রতিদিন ৫০ টাকা বিনিয়োগে মিলবে ৩৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত রিটার্ন!

Post Office Savings Scheme: রুরাল পোস্টাল লাইফ ইনস্যুরেন্স স্কিম প্রোগ্রাম (Rural Postal Life Insurance Schemes Program)-এর আওতায় ভারতীয় ডাক বিভাগ একাধিক প্ল্যান লঞ্চ করেছে।

  • Share this:

#কলকাতা: গ্রামাঞ্চলের মানুষ যাতে নিরাপদে নিজেদের টাকা সঞ্চয় করতে পারেন, তার জন্য দারুণ একটা মাধ্যম হিসেবে কাজ করে ভারতীয় ডাক বিভাগ (The India Post )। সরকার চালিত ভারতীয় ডাক বিভাগ গ্রামীণ মানুষের স্বার্থে বিভিন্ন স্কিমের সুবিধাও দিয়ে থাকে। আসলে দেশের অনুন্নত অঞ্চলগুলির মানুষের সুবিধার কথা ভেবেই বিভিন্ন সেভিংস স্কিমের (Post Office Savings Scheme) সুবিধা দেওয়া হয়। আর এই সব স্কিমে কোনও ঝুঁকিও থাকে না, সেই সঙ্গে বড়সড় রিটার্নও দিতে পারে। যার ফলে অনুন্নত গ্রামাঞ্চলের মানুষদের জীবন সুরক্ষিত থাকে। রুরাল পোস্টাল লাইফ ইনস্যুরেন্স স্কিম প্রোগ্রাম (Rural Postal Life Insurance Schemes Program)-এর আওতায় ভারতীয় ডাক বিভাগ একাধিক প্ল্যান লঞ্চ করেছে। যার মধ্যে গ্রাম সুরক্ষা যোজনা ভীষণই জনপ্রিয়তা লাভ করেছে।

আরও পড়ুন: কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীদের DA Hike নিয়ে Latest Update! ফের বাড়তে চলেছে বেতন

পোস্ট অফিসের গ্রাম সুরক্ষা যোজনা (Post Office Gram Suraksha Yojana) সারা জীবনের জন্য নিশ্চিত একটা পলিসি। যার সঙ্গে যুক্ত রয়েছে আরও একটা সুবিধা। আর সেটা হল- এই পলিসি নেওয়ার পাঁচ বছর সম্পূর্ণ হলে এটাকে এনডাউমেন্ট অ্যাসিওরেন্স পলিসি (Endowment Assurance Policy)-তে রূপান্তরিত করা যায়। এর আওতায় পলিসিধারক ৫৫ অথবা ৫৮ কিংবা ৬০ বছর বয়স পর্যন্ত স্বল্প প্রিমিয়াম দিয়ে সর্বোচ্চ সুবিধা লাভ করতে পারেন।

আরও পড়ুন: পোস্ট অফিসের দুর্দান্ত স্কিম! প্রতি মাসে ঘরে বসেই হবে নিশ্চিত আয়!

পোস্ট অফিস গ্রাম সুরক্ষা যোজনার বৈশিষ্ট্য এবং সুবিধা:

প্রথমেই জেনে নেওয়া যাক, পোস্ট অফিসের এই যোজনার বিভিন্ন দিক এবং কারা এই সুবিধা পাওয়ার যোগ্য-

  • এই যোজনা করার জন্য গ্রাহকের বয়সের সীমা সর্বনিম্ন ১৯ বছর এবং সর্বোচ্চ ৫৫ বছর।
  • নিশ্চিত রূপে মিলবে কম করে ১০ হাজার টাকা, আর সবথেকে বেশি ১০ লক্ষ টাকা পাওয়া যেতে পারে।
  • চার বছর পরে ঋণের সুবিধা আছে।
  • পলিসিধারক চাইলে তিন বছর পর এটা ছেড়ে বেরিয়ে যেতে পারেন।
  • যদি পাঁচ বছরের আগেই কেউ পলিসি ছেড়ে বেরিয়ে যান, তা-হলে তিনি এই স্কিম থেকে বোনাস পাবেন না।
  • বিমাধারকের ৫৯ বছর বয়স পর্যন্ত এটা এনডাউমেন্ট অ্যাসিওরেন্স পলিসিতে রূপান্তরিত করা যেতে পারে। তবে মাথায় রাখতে হবে যে, এই রূপান্তরের তারিখটি যেন প্রিমিয়াম পেমেন্ট বন্ধের তারিখ অথবা মেয়াদপূর্তির তারিখের এক বছরের মধ্যে না-পড়ে।
  • প্রিমিয়াম মেটানোর বয়সের বিকল্প হতে পারে ৫৫ অথবা ৫৮ কিংবা ৬০।
  • পলিসি ছেড়ে বেরিয়ে গেলে বিমার নিশ্চিত পরিমাণের উপর আনুপাতিক হারে বোনাস দেওয়া হয়।
  • সর্বশেষ ঘোষণা অনুযায়ী, প্রতি বছর প্রতি হাজার টাকার নিশ্চিত পরিমাণের উপর ৬০ টাকা বোনাস দেওয়া হবে।

এই যোজনায় প্রতি মাসে দৈনিক ৫০ টাকা করে রাখলে মিলবে ৩৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত রিটার্ন:

গ্রাম সুরক্ষা যোজনার আওতায় কোনও পলিসিধারক যদি প্রতি মাসে প্রতি দিন ৫০ টাকা করে জমা দেন, তা-হলে তিনি ৩৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত রিটার্ন পেতে পারেন। বিষয়টা সহজ ভাবেই বলা যাক, পলিসিধারককে প্রতি মাসে ওই পলিসির আওতায় ১৫১৫ টাকা বিনিয়োগ করতে হবে। প্রতি মাসে ১৫১৫ টাকার অর্থ হল, প্রতিদিন প্রায় ৫০ টাকার বিনিয়োগ। এবার যদি ওই পলিসি ১০ লক্ষ টাকার হয়ে থাকে, তা-হলে বিমাকারী মেয়াদপূর্তির পরে প্রায় ৩৪.৬০ লক্ষ টাকা রিটার্ন পেতে পারেন। বিনিয়োগকারী ৫৫ বছরের মেয়াদে পাবেন ৩১,৬০০০০ টাকা, আবার ৫৮ বছরের মেয়াদে পাচ্ছেন ৩৩,৪০০০০ টাকা। আর ৬০ বছরের মেয়াদে বিনিয়োগকারী পেয়ে যাবেন ৩৪.৬০ লক্ষ টাকা।

আরও পড়ুন: দ্রুত ২০২১-২২ আর্থিক বছরের ITR দাখিল করুন, ৩১ জুলাইয়ের পরে দিতে হবে লেট ফি!

রুরাল পোস্টাল লাইফ ইনস্যুরেন্স কী?

১৯৯৫ সালে ভারতের গ্রামীণ অঞ্চলের মানুষদের জন্য আনা হয়েছিল রুরাল পোস্টাল লাইফ ইনস্যুরেন্স বা আরপিএলআই (RPLI)। ভারতীয় ডাক বিভাগের ওয়েবসাইট অনুযায়ী, এই স্কিমের মূল উদ্দেশ্য হল গ্রামাঞ্চলের মানুষদের বিমা, আর্থিক ভাবে দুর্বল শ্রেণির মানুষদের এবং গ্রামাঞ্চলের মহিলা কর্মীদের সুবিধা দেওয়া। সেই সঙ্গে বিমার বিষয়ে গ্রামের মানুষদের মধ্যে সচেতনতা গড়ে তোলাও এই স্কিমের অন্যতম লক্ষ্য।

Published by:Dolon Chattopadhyay
First published:

Tags: Post office, Small Savings Scheme

পরবর্তী খবর