corona virus btn
corona virus btn
Loading

যে কোনও জরুরি অবস্থার জন্য প্ল্যানিং সম্পর্কে COVID-19 আমাদের যা শিক্ষা দিল

যে কোনও জরুরি অবস্থার জন্য প্ল্যানিং সম্পর্কে COVID-19 আমাদের যা শিক্ষা দিল

বিশ্বজুড়ে যখন এত আর্থিক অনিশ্চয়তা, তখন আমাদের প্রিয়জনদের সুরক্ষিত রাখা এবং তাদের খরচের জোগান নিশ্চিত করা একটি মৌলিক প্রয়োজন।

  • Share this:

আপনার জীবনকে ফিউচার-প্রুফ করে তোলার সহজ উপায়

এই মহামারী আমাদের এমন কিছু কঠোর আর্থিক এবং ব্যবসায়িক শিক্ষা দিয়েছে; যেগুলি এত কঠোরভাবে শেখার কোনও ইচ্ছা আমাদের ছিল না। তবুও, যখন আমাদের অর্থনীতিগুলি পুনরায় চালু করতে এবং পূর্ব পরিচিত জীবনে ফিরে যেতে চলেছি, তখন আমাদের অবশ্যই অতীত থেকে শিখতে হবে এবং যাতে এর পরে কোনও বিপর্যয়ের ক্ষেত্রে আমরা আরও ভালো ভাবে প্রস্তুত থাকতে পারি, সেই দিকে নজর দিতে হবে।

জরুরি ক্যাশ এবং লোন

যে কোনও বিচক্ষণ আর্থিক উপদেষ্টা পরামর্শ দেন, যে কোনও জরুরি পরিস্থিতিতে আপনি যাতে অন্তত কয়েক মাস জীবনধারণের সমস্ত খরচ চালাতে পারেন সেই হিসেবে হাতে ক্যাশ মজুত রাখা উচিত। যাঁরা এই বিচক্ষণ পরামর্শটি মেনে চলেছেন তাঁরা এই কঠিন সময় সহজে কাটিয়ে উঠতে পেরেছেন, কিন্তু যাঁরা ভাবতেন যে, "আমার সাথে এই রকম কখনও হবে না" তাঁদের যথেষ্ট বিপদের মুখে পড়তে হয়েছে। এটা কখনোই আশা করা হচ্ছে না যে, আপনারা সঞ্চয়ের এই ছোট কুশনটি রাতারাতি তৈরি করে ফেলবেন, তবে এটি তৈরি করার জন্য অগ্রাধিকারের ভিত্তিতে নজর দিতে হবে এবং জরুরি অবস্থার কথা ভেবে এমন একটি ক্যাশ ফান্ড গড়ে তুলতে হবে যা আপনাকে কিছু দিনের জন্য নিশ্চিন্ত থাকতে সাহায্য করবে। জব সিকিউরিটি একটি সম্পূর্ণ ভ্রান্ত ধারণা, যাকে অনেকেই সত্যি বলে মনে করেন। আর একটি গুরুত্বপূর্ণ শিক্ষা হল, এমন লোন কখনও নেবেন না যেটা আপনি শোধ করতে পারবেন না। তাই অতিরিক্ত টাকা ধার করা এড়িয়ে চলুন এবং চেষ্টা করুন ও সব সময় প্ল্যান প্রস্তুত রাখুন যাতে, বিশ্বের সামগ্রিক পরিস্থিতি যাই হোক না কেন, আপনি নির্দিষ্ট সময়ে নিজের লোন শোধ দিতে পারবেন।

লোক-দেখানো লাইফস্টাইল থেকে সাবধান

আপনার আয় যত বাড়ে, তার পাশাপাশি আপনার মনের মধ্যে থাকা "প্রয়োজনগুলির" তালিকাও বাড়তে থাকে। তবে এই বিশ্বব্যাপী সঙ্কট আমাদের শিখিয়েছে, প্রকৃতপক্ষে প্রয়োজনীয় জিনিসগুলির উপরে আপনার যে নিত্য ব্যয় হয়, তার উপরে আপনার নিয়ন্ত্রণ খুব কম। তবে আপনার ক্রেডিট কার্ড স্টেটমেন্টের দিকে একবার তাকালেই বুঝতে পারবেন, এমন অনেক অপ্রয়োজনীয় খরচ রয়েছে যেগুলি আপনি সহজেই বন্ধ করতে পারেন এবং তারপরেও একটি স্বচ্ছল এবং সুখী জীবনযাপন করতে পারেন। বাড়িতে বন্দি হয়ে থাকার এই সময়টা আমাদের শিখিয়েছে যে, ব্যয়বহুল বিনোদনের অভ্যাস এবং অযথা কেনাকাটার মতো সামান্য জিনিস কীভাবে একমাসের ব্যয় অনেকটা বাড়িয়ে দিতে পারে।

নিরাপদে থাকতে ভালোভাবে বীমা করান

বিশ্বজুড়ে যখন এত আর্থিক অনিশ্চয়তা, তখন আমাদের প্রিয়জনদের সুরক্ষিত রাখা এবং তাদের খরচের জোগান নিশ্চিত করা একটি মৌলিক প্রয়োজন। যেহেতু কর্মসংস্থানের কোনও নিশ্চয়তা নেই, তাই শুধুমাত্র নিয়োগকর্তার দেওয়া বীমার উপরে নির্ভর করে থাকাটা কোনও বুদ্ধিমানের কাজ নয়। এমন একটি আর্থিক সমাধান প্রয়োজন যার অগ্রাধিকার হবে আমাদের আর্থিক কর্পাস ধরে রাখা এবং অর্থনৈতিক শক্তি তৈরির কাজে সহায়তা করা। HDFC লাইফ সঞ্চার প্লাস-এ রয়েছে এই ধরনের সমস্ত সঞ্চয় বীমা পরিকল্পনার সুবিধা। একটি নন-পার্টিসিপেটিং, নন-লিঙ্কড প্ল্যান, যা কোনও রকম অপ্রত্যাশিত ঘটনার সময় আপনার প্রিয়জনদের ভবিষ্যতের সুরক্ষার জন্য গ্যারান্টিযুক্ত রিটার্ন দেয়।

এখানে আপনি সিস্টেমেটিক সেভিংস এবং নিশ্চিত নিয়মিত আয়ের বিকল্প বেছে নিতে পারবেন যার মাধ্যমে আপনার পরিবারের খরচ চালাতে এবং সমস্ত দায়িত্ব পূরণ করতে পারবেন। নিশ্চিত রিটার্নের পাশাপাশি, HDFC লাইফ সঞ্চার প্লাস প্ল্যান কিছু গ্যারান্টিযুক্ত সুবিধা দেওয়ার জন্য বিশেষ ভাবে ডিজাইন করা হয়েছে, যা আমাদের মধ্যে অনেকেই এখনই খুঁজছেন। এই নন-লিঙ্কড প্ল্যানে ঝুঁকি খুবই কম এবং এটি নিশ্চিত করে যাতে এর প্রতিশ্রুতি দেওয়া প্রতিটি সুবিধা আপনি খুবই সহজে এবং অনায়াসে পেতে পারেন। অবসর গ্রহণের পরে অবিচ্ছিন্ন আয়ের উৎস সম্পর্কে যাঁরা উদ্বিগ্ন, তাদের জন্য এই প্ল্যানের জীবন-ভর আয়ের বিকল্পটি অন্যতম আশীর্বাদ। এই সমস্ত সুবিধার সাথে পাবেন ট্যাক্স বেনিফিট-ও, তাই HDFC লাইফ সঞ্চার প্লাস এমন একটি বিশ্বাসযোগ্য বিকল্প যা সর্বদা আপনার পাশে থাকবে।

এই প্ল্যান সম্পর্কে আরও বিস্তারে জানতে, ক্লিক করুন এখানে.

আরও ভালো ভাবে বাজেট বানাতে শিখুন

আমাদের মধ্যে অধিকাংশই বাজেট তৈরির কথা শুনলে বিরক্ত হন, কিন্তু আয় ক্রমশ কমতে থাকা, চাকরির অভাব এবং সংকটের ফলে উদ্ভূত এই অনিশ্চিত সময়ে, একটি বাজেট তৈরি থাকলে তা আপনাকে বুঝতে সাহায্য করবে যে, চ্যালেঞ্জের মোকাবিলা করার সময়ে কীভাবে আপনি নিজের ফান্ড পরিচালনা করবেন। গণনা করে দেখুন, যে কোনও জরুরি অবস্থার ক্ষেত্রে আপনার কত সঞ্চয় লাগতে পারে; এবারে আপনার সমস্ত বেসিক চাহিদা মেটানোর জন্য খরচ করুন এবং পরবর্তী 3-6 মাসেরও বেশি সময় ধরে সাশ্রয় করতে শুরু করুন যত ক্ষণ না সেই পরিমাণ টাকা জমাতে পারছেন। এভাবে জীবনযাপন করাটা আপনার পক্ষে খুব একটা সহজ নয়। মনোযোগ সহকারে, আপনার সমস্ত ব্যয় কমপক্ষে এক মাসের জন্য নোট করুন এবং সেই তথ্যটি আপনার ব্যয় সঙ্কুচিত করার কাজে ব্যবহার করুন। কিছু অপ্রত্যাশিত ব্যয়ের জন্য একটি ছোট বাফার তৈরি করুন এবং এর জন্য কোনও অ্যাপ বা স্প্রেডশিট ব্যবহার করুন, যা আপনাকে এগুলি ট্র্যাক করতে সহায়তা করতে পারে।

COVID-19 আমাদের শিখিয়েছে যে দুর্যোগ সম্পূর্ণ বিনা নোটিসে এসে সমস্ত সেরা প্ল্যানকে লাইনচ্যুত করে দিতে পারে। এটি আমাদের দেখিয়েছে যে কীভাবে আমাদের জীবনের বিভিন্ন ক্ষেত্রের জন্য পরিকল্পনা থাকা দরকার - বাড়ির সংস্কার থেকে শুরু করে পারিবারিক ছুটি পর্যন্ত এবং অবসর গ্রহণের পরিকল্পনাও রাতারাতি পরিবর্তিত হতে পারে। তবুও, ভালো খবর হল, আপনি এখন যে পরিস্থিতি মুখোমুখি হয়েছেন যদি তার থেকে শিক্ষা নিয়ে থাকেন, তাহলে এর পরে যে কোনও চ্যালেঞ্জের মোকাবিলা আপনি আরও বেশি আত্মবিশ্বাস ও দৃঢ়তার সাথে করতে পারবেন।

এটি একটি পার্টনার পোস্ট

Published by: Elina Datta
First published: December 29, 2020, 9:57 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर