Home /News /business /
Loan Advice: রেপো রেট বাড়ার কারণে বাড়বে ইএমআই, কী ভাবে কমাবেন মাসিক কিস্তির বোঝা?

Loan Advice: রেপো রেট বাড়ার কারণে বাড়বে ইএমআই, কী ভাবে কমাবেন মাসিক কিস্তির বোঝা?

রেপো রেট বাড়ার কারণে বাড়বে ইএমআই, কীভাবে কমাবেন মাসিক কিস্তির বোঝা?

রেপো রেট বাড়ার কারণে বাড়বে ইএমআই, কীভাবে কমাবেন মাসিক কিস্তির বোঝা?

Loan Advice: চলতি বছরের ১০ ফেব্রুয়ারি রেপো রেট ছিল ৪ শতাংশে, এপ্রিলেও রেপো রেট অপরিবর্তিত রাখা হয়। মে মাসে রেপো রেট ৪০ বেসিস পয়েন্ট বাড়িয়ে ৪.৪০ শতাংশ করা হয়।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: বুধবার রেপো রেট (Repo Rate) ৫০ বেসিস পয়েন্ট বাড়িয়েছে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া (Reserve Bank of India)। নতুন রেপো রেট হচ্ছে ৪.৯ শতাংশ। আরবিআই-এর (RBI) গভর্নর শক্তিকান্ত দাসের (Shaktikanta Das) নেতৃত্বাধীন মানিটারি পলিসি কমিটি (Monetary Policy Committee) এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। রিজার্ভ ব্যাঙ্ক যে সুদের হারে বাণিজ্যিক ব্যাঙ্কগুলিকে স্বল্পমেয়াদি ঋণ দেয় তাকে রেপো রেট বলা হয়। রেপো রেট বাড়ার কারণে বাড়ি-গাড়ির জন্য নেওয়া ঋণের সুদের হারও বাড়তে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। সেক্ষেত্রে ইএমআই (EMI) বাড়বে।

কীভাবে হোম লোন ইএমআই প্রভাবিত হবে?

চলতি বছরের ১০ ফেব্রুয়ারি রেপো রেট ছিল ৪ শতাংশে, এপ্রিলেও রেপো রেট অপরিবর্তিত রাখা হয়। মে মাসে রেপো রেট ৪০ বেসিস পয়েন্ট বাড়িয়ে ৪.৪০ শতাংশ করা হয়। আর গতকাল বুধবার আরও ৫০ বেসিস পয়েন্ট বাড়িয়ে রেপো রেট ৪.৯০ শতাংশ করা হয়েছে। এই বৃদ্ধির কারণে ব্যাঙ্ক এবং হাউজিং ফিনান্স কোম্পানিগুলির (Housing Finance Companies) মতো ঋণদাতারা তাদের ঋণের হার বাড়াতে পারে, যার ফলে ইএমআই-এর পরিমাণ বাড়বে।

আরও পড়ুন: স্ত্রীর শরীর কুপিয়ে ফালাফালা, স্বামী ঝুলছে গাছের সঙ্গে! বাঁকুড়ায় হাড়হিম কাণ্ড

উদাহরণ দিলে বিষয়টা পরিষ্কার হয়ে যাবে। এসবিআই (SBI) থেকে বর্তমান ৭.১ শতাংশ সুদের হারে ৩০ বছরের মেয়াদে ২০ লক্ষ টাকা ঋণ নেওয়া থাকলে মাসিক ইএমআই ১৩,৪৪১ টাকা থেকে বেড়ে হবে ১৪,৬৭৫ টাকা, যদি হোম লোনের (Home Loan) সুদের হার ৭.১ শতাংশ থেকে বেড়ে ৮ শতাংশে পৌঁছে যায়। অর্থাৎ মাসিক ইএমআই ১,২৩৪ টাকা বাড়বে। একই ভাবে গাড়ির লোনের (Car Loan) সুদের হার এখন ৭.৪৫ শতাংশ। যদি ২০ বছরের মেয়াদে ১০ লক্ষ টাকার গাড়ি লোন থাকে, তাহলে ইএমআই ৮,০২৫ থেকে বেড়ে ৮,৫৮৪ টাকা হবে, যদি গাড়ি লোনের সুদের হার বাড়িয়ে ৮.৩৫ শতাংশ করা হয়। তেমনই আবার, এসবিআই ব্যক্তিগত ঋণের (Personal Loan) সুদের হার এখন বার্ষিক ৭.০৫ শতাংশ। যদি এটা বাড়িয়ে ৭.৯৫ শতাংশ করা হয় তাহলে ১০ বছরের মেয়াদে ১০ লক্ষের ব্যক্তিগত ঋণের ইএমআই ১১,৬৩৭ থেকে বেড়ে ১২,১০৬ টাকা হবে। অর্থাৎ মাস প্রতি ইএমআই ৪৬৯ টাকা বৃদ্ধি পাবে।

আরও পড়ুন: দিলীপ ঘোষের কাছে এল ফোন, তাতেই তুমুল আলোড়ন! ফের ক্ষমতা বৃদ্ধির ইঙ্গিত?

কীভাবে এএমআই কমানো যাবে?

যাঁদের ঋণ রয়েছে তাঁরা ইএমআই কমাতে ব্যালেন্স ট্রান্সফার বিকল্প (Balance Transfer Option) ব্যবহার করতে পারেন। এটি এমন একটি পরিষেবা যাতে গ্রাহকরা তাঁদের মোট বকেয়া ঋণের ব্যালেন্স অন্য ব্যাঙ্কে স্থানান্তর করতে পারেন, যে ব্যাঙ্ক বকেয়া ঋণের পরিমাণে কম সুদ নেয়। যখন বকেয়া ঋণের পরিমাণ বেশি হয়, তখন এটি সর্বোত্তম বিকল্প। তবে প্রক্রিয়াকরণ ফি এবং অন্যান্য সম্পর্কিত চার্জ অবশ্যই বিবেচনা করা উচিত। আরেকটি বিকল্প হল সম্পূর্ণ বা আংশিক প্রিপেমেন্ট, যা ঋণের বোঝা কমাতে সাহায্য করে।

নতুন ঋণগ্রহীতারা তাঁদের ইএমআই-এর বোঝা কমাতে বেশি ডাউন পেমেন্ট ও দীর্ঘ মেয়াদের ঋণ বেছে নিতে পারেন। ঋণ নেওয়ার ক্ষেত্রে লেন-দেন থাকা ব্যাঙ্ককেই অগ্রাধিকার দেওয়া উচিত। তাতে সুদের হার নিয়ে দর কষাকষি করা যেতে পারে। এছাড়াও কম সুদে ঋণ দিচ্ছে এমন ব্যাঙ্ক বা এনবিএফসি সংস্থার কথাও বিবেচনা করা যেতে পারে।

First published:

Tags: Repo Rate

পরবর্তী খবর