Home /News /astrology /
Numerology Suggestions : সংখ্যাতত্ত্ব অনুযায়ী আপনার সম্পর্ক টিকবে না সহজেই ভেঙে যাবে ?

Numerology Suggestions : সংখ্যাতত্ত্ব অনুযায়ী আপনার সম্পর্ক টিকবে না সহজেই ভেঙে যাবে ?

Numerology Suggestions : কোন সংখ্যার মানুষের সঙ্গে কার কতটা মনের মিল বা অমিল হবে তা আগে থেকেই জানতে পারা যায়।

  • Share this:

    #কলকাতা: আমাদের রাশিচক্রের বিভিন্ন রাশির মধ্যে মিল এবং অমিল বেশ সুস্পষ্ট। ঠিক তেমনই সংখ্যাতত্ত্ব অনুযায়ীও কোন সংখ্যার মানুষের সঙ্গে কার কতটা মনের মিল বা অমিল হবে তা আগে থেকেই জানতে পারা যায়। সংখ্যাতত্ত্ববিদরা তাই মনে করেন, জীবনে ভাল ভাবে সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষেত্রে সংখ্যাতত্ত্ব আমাদের গুরুত্বপূর্ণ সহায়ক হয়ে উঠতে পারে, বিশেষত সম্পর্কের ক্ষেত্রে তো বটেই। তাহলেই বোঝা যাবে যে কোন সম্পর্ক টিকবে আর কোনটা ভাঙবে সহজেই (Numerology Least Compatible Numbers)!

    আরও পড়ুন: বেড়েই চলেছে রেপো রেট, এবার কি বিনিয়োগ পোর্টফোলিওতে ফিক্সড ডিপোজিট রাখবেন?

    #সংখ্যা ১ (যাঁদের জন্ম ১, ১০, ১৯ এবং ২৮ তারিখে): এঁরা অত্যন্ত স্বাধীন প্রকৃতির মানুষ এবং একক ভাবে কাজ করলে এঁদের সাফল্য পাওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়। ফলে যাঁরা সম্পর্ককে আঁকড়ে ধরে রাখতে চান তাঁদের সঙ্গে এঁরা ঠিক মানিয়ে চলতে পারেন না।

    তাই যাদের জন্মসংখ্যা ২ তাদের সঙ্গে এঁদের ঠিক বনে না। কেননা এঁরা সাধারণ আত্ম-কেন্দ্রিক এবং আত্মবিশ্বাসী স্বভাবের মানুষ হয়ে থাকেন। অপর দিকে ২ সংখ্যাজাত মানুষরা বেশ সহযোগিতাপূর্ণ মনোভাব পোষণ করেন। ফলে এঁদের মধ্যে ভালোবাসার তুলনায় রেষারেষির সম্পর্কটাই বড় হয়ে দাঁড়ায়।

    #সংখ্যা ২ (যাঁদের জন্ম ২, ১১, ২০ এবং ২৯ তারিখে): এঁরা সম্প্রীতি বজায় রেখে চলতে ভালোবাসে। তাই যে কোনও সংখ্যাজাত মানুষের সঙ্গেই এঁরা মানিয়ে নিতে পারেন। এঁরা সামাজিক ভাবে মেলামেশা করতে পছন্দ করেন।

    তাই যাদের জন্মসংখ্যা ৩ তাঁদের সঙ্গে এঁরা ঠিক মানিয়ে নিতে পারেন না। ৩ সংখ্যাজাত মানুষরা যেহেতু অমনোযোগী ও খামখেয়ালি স্বভাবের হন তাই এঁদের মনে হতে পারে যে সম্পর্কের যাবতীয় দায়িত্ব তাঁদের। তাই এঁদের সঙ্গে সম্পর্ক করতে হলে আগে থেকেই সম্পর্কের সীমারেখা নিয়ে ওয়াকিবহাল থাকতে হবে।

    #সংখ্যা ৩ (যাঁদের জন্ম ৩, ১২, ২১ এবং ৩০ তারিখে): এঁরা কিন্তু প্রকৃতপক্ষে বন্ধুত্বপূর্ণ, কৌতূহলী এবং সৃজনশীল স্বভাবের হন। এঁরা খামখেয়ালি স্বভাবের এবং চেষ্টা করেন কোনও বাধা ছাড়াই জীবনে এগিয়ে চলতে।

    ঠিক এর বিপরীত স্বভাবের হলেন ৮ সংখ্যাজাত মানুষরা। এঁরা খুবই নিয়ম মেনে চলেন, প্রাথমিক ভাবে ৩ সংখ্যাজাতদের দিকে আকর্ষিত হলেও সমালোচনা করার প্রবৃত্তি সম্পর্ককে দীর্ঘস্থায়ী হতে দেয় না।

    আরও পড়ুনআইআইটি খড়গপুর থেকে গুগলের সিইও! সুন্দর পিচাইয়ের জীবনের এই গল্পগুলি জানেন?

    #সংখ্যা ৪ (যাঁদের জন্ম ৪, ১৩, ২২ এবং ৩১ তারিখে): এঁরা ব্যবহারিক জীবনযাপনের প্রতি আগ্রহী এবং কঠোর পরিশ্রমী হন। এঁদের এমন একজন পার্টনারের প্রয়োজন যাঁরা তাঁদের মতোই বাস্তববাদী এবং ভবিষ্যতের কাছে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

    ফলে ৭ সংখ্যাজাত মানুষদের সঙ্গে এঁদের বিরোধ অবশ্যম্ভাবী। একজন সাংঘাতিক বাস্তববাদী হলে অপরজন জীবনদর্শনের সমর্থক। ফলে এঁরা দুজনে কোনও বিষয়ে তর্ক শুরু করলে কোনও সিদ্ধান্তেই পৌঁছনো যাবে না।

    #সংখ্যা ৫ (যাঁদের জন্ম ৫, ১৪ এবং ২৩ তারিখে): এঁরা অ্যাডভেঞ্চারের দিকে অধিক আগ্রহী হন। স্বাধীনচেতা এবং মাঝে মাঝে অপ্রত্যাশিত আচরণ করেন। কোনও রকম প্রশ্ন ছাড়াই এঁরা সম্পর্কে থাকতে চান। তাই লাইফ পাথ ৪ নম্বরের সঙ্গে এঁদের মনের মিল হয় না। বেশিরভাগ সময় এঁদের সম্পর্কে কমপ্রোমাইজের দরকার হয়, যা আদৌ সর্বদা সম্ভব নয়।

    #সংখ্যা ৬ (যাঁদের জন্ম ৬, ১৫ এবং ২৪ তারিখে): এঁরা রহস্য ধরে রাখতে ভালোবাসেন, অন্তহীন রোম্যান্টিক স্বভাবের মানুষ ও সবসময় পার্টনারের যত্ন নিতে পছন্দ করেন।

    অপর দিকে, ৭ সংখ্যাজাত মানুষরা একেবারেই রহস্য পছন্দ করেন না। এঁরা সম্পর্ক নিয়েও খুব একটা রোম্যান্স-প্রত্যাশী নন। তাই প্রথম সাক্ষাতেই সম্পর্ক ভেঙে যেতে পারে।

    #সংখ্যা ৭ (যাঁদের জন্ম ৭, ১৬ এবং ২৫ তারিখে): এঁরা জীবনকে অন্যরকম দৃষ্টিভঙ্গী থেকে দেখতে পছন্দ করেন এবং সম্পর্কের ক্ষেত্রে ভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গি পোষণ করেন।

    তাই লাইফ পাথ ৬ নম্বরের সঙ্গে এঁদের মিল হওয়া অসম্ভব। প্রথমত এঁর দাপুটে স্বভাব ও সম্পর্ককে বেঁধে রাখার প্রবণতা এঁদের ৭ নম্বরের জাতকদের থেকে দূরে সরিয়ে রাখে।

    #সংখ্যা ৮ (যাঁদের জন্ম ৮, ১৭ এবং ২৬ তারিখে): অত্যন্ত উচ্চাভিলাষী স্বভাবের মানুষ এঁরা। এঁরা এমন একজনকে চান যাঁরা তাঁদের জীবনে নানা ভাবে সাহায্য করবেন।

    উল্টো দিকে, ১ সংখ্যাজাতরা খুব প্রতিযোগিতামূলক এবং সম্পর্কের ক্ষেত্রে কিছুটা ঈর্ষাকাতর হওয়ার এঁদের সঙ্গে মনের মিল হয় না।

    আরও পড়ুন: এক বছরের বিনিয়োগে অর্থ হয়েছে দ্বিগুণ, এই ৪ স্টক বাজারের লম্বা দৌড়ের ঘোড়া!

    #সংখ্যা ৯ (যাঁদের জন্ম ৯, ১৮ এবং ২৭ তারিখে): এঁরা সকলের প্রতি সহানুভূতিশীল এবং সকলের জন্য কাজ করতে ভালোবাসেন।

    তবে ৫ সংখ্যাজাতদের আপাত ভাবে এঁদের জন্য পারফেক্ট মনে হলেও ছেলেমানুষি স্বভাবের কারণে ৯ সংখ্যাজাতদের সঙ্গে এঁরা মানিয়ে নিতে পারেন না।

    Published by:Dolon Chattopadhyay
    First published:

    Tags: Astrology, Numerology Suggestions

    পরবর্তী খবর