সরকারি পুরস্কারপ্রাপ্তদের পেনশন বন্ধ করতে চলেছেন যোগী

Jun 03, 2017 01:56 PM IST | Updated on: Jun 03, 2017 01:56 PM IST

#লখনউ: উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী আসনে বসেই সবকা সাথ, সবকা বিকাশের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন যোগী আদিত্যনাথ। কোনও পক্ষপাতিত্ব না করে, রাজ্যকে উন্নয়নের পথে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া। মহিলাদের ক্ষমতায়ন, বেকার সমস্যা মেটানো, আইনশঙ্খলা পরিস্থিতি বজায় রাখার ওপরও জোর দিয়েছিলেন নতুন মুখ্যমন্ত্রী। এমনিতে তিনি হিন্দুত্বের মুখ হিসেবেই পরিচিত। তবে মুখ্যমন্ত্রীর কুর্সিতে বসে, সমাজের সবস্তরের উন্নয়নে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন যোগী আদিত্যনাথ। ক্ষমতায় আসার পর থেকে একটুও সময় নষ্ট করেননি তিনি ৷ এসে থেকেই একের পর এক নজিরবিহীন পদক্ষেপ নিয়েছে যোগী সরকার ৷

এর কয়েকদিন আগেই বিভিন্ন প্রকল্পে সংখ্যালঘু কোটা বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল যোগী সরকার ৷ ফের সমাজবাদী পার্টির নেওয়া আরও একটি নির্দেশ বাতিল করল যোগী সরকার ৷ এতদিন পর্যন্ত যশ ভারতী ও পদ্ম জয়ীদের মাসে ৫০,০০০ টাকা পেনশন দিত উত্তরপ্রদেশ সরকার ৷ অখিলেশ যাদবের সরকার ২০১৬ সাল থেকে পেনশনের এই স্কিম চালু করেছিল ৷ মার্চ মাসে মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথগ্রহণ করার পরই তা বাতিল করে দেয় যোগী আদিত্যনাথ ৷

সরকারি পুরস্কারপ্রাপ্তদের পেনশন বন্ধ করতে চলেছেন যোগী

১৭২ জন যশ ভারতী যার মধ্য রয়েছেন বিশাল ভরদ্বাজ, অনুরাগ কাশ্যপ ও রাজ বব্বর ৷ অন্য দিকে ৩০ জন পদ্ম জয়ীর মধ্যে রয়েছে গিরীজা দেবী, অশোক চক্রধার ও অনুপ জালোটা ৷ এতদিন পর্যন্ত এনারা সকলেই এই পেনশন পেয়ে আসতেন ৷

এর শীর্ষ সরকারি আধিকারিক জানিয়েছেন, ‘রাজ্যে ২৬৯ যশ ভারতী রয়েছেন ৷ তাঁধের মধ্যে ১৭২জন পেনশনের জন্য আর্জি জানিয়েছিলেন ৷ এবছরের ফেব্রুয়ারি মাস পর্যন্ত তারা সেটা পেয়েও আসছিলেন ৷ তাদের মধ্যে রয়েছেন ফিল্ম স্টার, ক্রিকেটার, গায়ক ৷ এছাড়া ৩০ জন পদ্ম জয়ীও এই পেনশন পাচ্ছিলেন ৷ আপাতত এখন এই পেনশন বন্ধ রাখা হয়েছে ৷ মুখ্যমন্ত্রীর দফতর থেকে কোনও নির্দেশ পাওয়া পর্যন্ত আপাতত সেটি বন্ধই থাকবে ৷’

যশ ভারতী সম্মান উত্তর প্রদেশ সরকারের সেরা সম্মান ৷ মুলায়ম সিং যাদব এই পুরস্কার দেওয়া শুরু করে ৷ ১৯৯৪-৯৫ থেকে এটি শুরু করা হয় ৷ সমাজ কল্যাণ, সাহিত্য, সিনেমা, ড্রামার মতো বিভিন্ন ফিল্ডে অবদানের জন্য এই সম্মান দেওয়া হয়ে থাকে ৷ প্রথমে জয়ীদের ১ লক্ষ টাকা করে পুরস্কার দেওয়া হত ৷ পরে ২০০৫ সালে তা বাড়িয়ে ৫ লক্ষ টাকা করা হয় ৷ এরপর অখিলেশ যাদব তা বাড়িয়ে করে দেয় ১১ লক্ষ টাকা ৷

প্রতি বছর প্রায় ১০ কোটি টাকা যশ ভারতী ও পদ্ম জয়ীদের পেনশন দেওয়ার জন্য খরচ হত বলে জানিয়েছেন এক সরকারি আধিকারিক ৷ পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখার পর রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছে মুখ্যমন্ত্রীর দফতর ৷ তবে এই পেনশন সরকার ফের চালু করবে কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন রয়েই যাচ্ছে ৷

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES