বসিরহাটের পরিস্থিতিকে রাজনৈতিক লাভের কাজে লাগাতে মরিয়া বিজেপি

Jul 06, 2017 06:42 PM IST | Updated on: Jul 06, 2017 06:43 PM IST

#কলকাতা: বসিরহাটের পরিস্থিতিকে কাজে লাগাতে মরিয়া বিজেপি। আগামীকাল, শুক্রবারই ঘটনাস্থলে যাচ্ছে বিজেপি-র রাজ্যস্তরের প্রতিনিধিদল। তারপর যাবেন কেন্দ্রীয় নেতারা। বিচারবিভাগীয় তদন্তের দাবি তুলে হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা করেছে বিজেপির আইনজীবী সেল।

বসিরহাটের পরিস্থিতি অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে। তবু রাজনৈতিক ফায়দা তুলতে আগুনটা জ্বেলে রাখতে চাইছে বিজেপি। চলছে রাজ্য সরকারকে দোষারোপের পালা। চলছে প্ররোচনা ছড়ানোর পালাও।

বসিরহাটের পরিস্থিতিকে রাজনৈতিক লাভের কাজে লাগাতে মরিয়া বিজেপি

পরিস্থিতি অনেকটা নিয়ন্ত্রণে আসার পরেও বিজেপি যে ইস্যুটা হাতছাড়া করতে নারাজ সেটা স্পষ্ট। বৃহস্পতিবার আর জি করে মৃত্যু হয় বাদুড়িয়ার কার্তিক ঘোষের। কার্তিকবাবুকে আরএসএস কর্মী বলে দাবি করে মৃতদেহ নিয়ে রাজনীতির খেলায় নামেন কৈলাশ বিজয়বর্গী, দিলীপ ঘোষরা। সে চেষ্টা অবশ্য সফল হয়নি। তবে শুক্রবার কার্তিকবাবুর বাড়িতে যাবে রূপা গঙ্গোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে প্রতিনিধিদল।

বৃহস্পতিবারই হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করেছে বিজেপির আইনজীবী সেল। তাতে ঘটনার তদন্তে বর্তমান কোনও বিচারপতির নেতৃত্বে কমিশন গড়ার দাবি জানানো হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্তদের ক্ষতিপূরণ দেওয়ার দাবিও জানানো হয়েছে।

হাইকোর্টে বিজেপি

- জনস্বার্থ মামলা বিজেপি আইনজীবী সেলের

- বিচারবিভাগীয় তদন্ত কমিশন করার দাবি

- বর্তমান কোনও বিচারপতির নেতৃত্বে কমিশন গড়ার দাবি

- রাজ্য সরকারের কাছে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার দাবি

অশান্তির আঁচে রাজনৈতিক লাভের অঙ্ক কষছেন বিজেপি নেতারা। বৃহস্পতিবারই বিজেপি নেতারা জানিয়ে দিয়েছেন, এরপরে আসবেন দলের কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দল।পরে বসিরহাটে যাবেন বিজেপি-র কেন্দ্রীয় নেতারা ৷

অর্থাৎ এটা স্পষ্ট যে বসিরহাট ইস্যু জিইয়ে রেখে ফসল ঘরে তোলার চেষ্টা জারি রাখবে বিজেপি। শান্তি ফেরানো নয়, ধর্মীয় মেরুকরণের রাজনীতির পালে হাওয়া লাগাতেই ব্যবহার হবে এই ইস্যু।

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES