‘ কালা কালুটা ব্যাঙ্গন লুটা....’ উদয়নকে ছোটবেলায় এই বলেই খেপাত সহপাঠীরা

Siddhartha Sarkar | News18 Bangla
Updated:Feb 08, 2017 05:53 PM IST
‘ কালা কালুটা ব্যাঙ্গন লুটা....’ উদয়নকে ছোটবেলায় এই বলেই খেপাত সহপাঠীরা
Photo : AFP
Siddhartha Sarkar | News18 Bangla
Updated:Feb 08, 2017 05:53 PM IST

#বাঁকুড়া : প্রেমিকা ছাড়াও নিজের বাবা-মা-কে খুন করে যে নিজের ঘরে বা বাড়ির বাগানে পুঁতে রাখতে পারে, সে তো আর যেমন তেমন খুনি হতে পারে না ৷ সিরিয়াল কিলার উদয়ন দাস যে অত্যন্ত জটিল মানসিকতার মানুষ, তা নিয়ে আর কোনও সন্দেহ নেই ৷ পুলিশ হেফাজতে উদয়নকে জেরায় এখন একের পর এক তথ্য জানতে পারছেন তদন্তকারী অফিসাররা ৷ ছোটবেলার থেকেই উদয়নের কোনও বন্ধু নেই ৷ বরং ফেসবুকের মতো ভার্চুয়াল দুনিয়াতেই বেশি বন্ধুত্বের ঝোঁক তার ৷

উদয়নের রোষে এর আগেও অনেকেই পড়েছে ৷  উদয়ন কালো এবং বেটে বলে, ছোটবেলার থেকেই বন্ধুরা তাকে খেপাত ৷ বৈভব পাঠক এবং অভিমন্যু পোখরাজ নামের দুই সহপাঠী তাকে যথেষ্ট বিদ্রুপ করত ৷ ‘কালা কালুটা ব্যাঙ্গন লুটা’ বলে উদয়নকে খেপাত বন্ধুরা ৷ সেখান থেকেই তার প্রতিশোধস্পৃহা বাড়তে থাকে ৷ জেরায় পুলিশকে এমনটাই জানিয়েছে উদয়ন নিজেই ৷

এছাড়া টেলি সিরিজ ‘ডেভিলস নট’ বারবার দেখেই আকাঙ্খাকে খুনের ছক কষে উদয়ন ৷ ছবি দেখেই আকাঙ্খাকে খুন করে সিমেন্টের বেদি বানানোর ভাবনা আসে উদয়নের মাথায় ৷ খুনের পর দু’জন মিস্ত্রিকে ডাকিয়ে ঘরের মধ্যে সিমেন্টের কাজ করায় সে ৷ মিস্ত্রিদের উদয়ন বলে ঠাকুরঘরে বেদি তৈরি করা হবে ৷ তাই মিস্ত্রিদের ঘরে ঢুকতে না দিয়ে নিজেই আকাঙ্খার মৃতদেহ পুঁতে সিমেন্টের বেদি বানায় উদয়ন ৷ পরে মার্বেল মিস্ত্রিকে ডেকে পাঠিয়ে বেদিটিকে মার্বেল করার কাজ সম্পূর্ণ করে সিরিয়াল কিলার ৷

First published: 05:53:56 PM Feb 08, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर