উলুবেড়িয়ায় ব্যাঙ্ককর্মীর মৃত্যুতে নয়া তথ্য, বাড়ছে রহস্য

Feb 11, 2017 04:56 PM IST | Updated on: Feb 11, 2017 07:10 PM IST

#হাওড়া: উলুবেড়িয়ায় ব্যাঙ্ককর্মীর মৃত্যুতে বাড়ছে রহস্য। আজ উলুবেড়িয়া থানায় ব্যাঙ্ক ম্যানেজার ও কোষাধক্ষ্যের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে মৃতের পরিবার। অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে স্থানীয় ব্যবসায়ী সোমনাথ ঘোষ ও তাঁর সহযোগী অমিত নায়েকের বিরুদ্ধেও। পরিবারের অভিযোগ, ব্যাঙ্কের মাধ্যমে কালো টাকা সাদা করার চক্র ঢাকতেই খুন করা হয়েছে রজত চৌধুরীকে।

আত্মহত্যা না পরিকল্পিত খুন? উলুবেড়িয়ায় রাষ্ট্রয়ত্ত ব্যাঙ্কের অস্থায়ী কর্মী রজত চৌধুরীর মৃত্যুতে ক্রমশই দানা বাঁধছে রহস্য। মৃত্যুর আগে, শুক্রবার ফেসবুক পোস্টে রজত চৌধুরী লেখেন,   

উলুবেড়িয়ায় ব্যাঙ্ককর্মীর মৃত্যুতে নয়া তথ্য, বাড়ছে রহস্য

‘কিছু মানুষ আমায় বাঁচতে দিল না। আমার মৃত্যুর জন্য দায়ী সোমনাথ ঘোষ ও অমিত নায়েক। ব্যাঙ্কে যত টাকা এক্সচেঞ্জ হয়েছে সব সোমনাথ ঘোষ এবং সহযোগীরা আমাকে দিয়ে জোর করে লিখিত নিয়ে আমার নামে পুলিশ কেস করে দিল । আমার সব বন্ধু ও আত্মীয় তোমরা আমাকে ক্ষমা করে দিও। আমি চলে যাচ্ছি। আমার মেয়ে স্ত্রী ও বাবা থাকলো। তোমরা ওদের একটু যত্ন করো। আমি চলে যাচ্ছি। বাড়ির সকলে তোমরা আমাকে ক্ষমা করে দিও ’

শনিবার উলুবেড়িয়ার ব্যবসায়ী সোমনাথ ঘোষ ও তাঁর সহযোগী অমিত নায়েকের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করে রজত চৌধুরীর পরিবার। অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের মাঝেরহাটি শাখার ম্যানেজার চিন্ময় দত্ত এবং কোষাধক্ষ্য রাজু প্রামাণিকের বিরুদ্ধেও। তাঁদের অভিযোগ,

ব্যাঙ্ক জালিয়াতি ঢাকতেই খুন?

- নোট বাতিলের পর ওই ব্যাঙ্কের মাধ্যমে ৩৫ লক্ষ টাকা পাল্টান ব্যবসায়ী সোমনাথ ঘোষ

- নিয়ম ভেঙে ব্যবসায়ীর কালো টাকা সাদা করা হয়

- দুর্নীতির বিষয়টি নজরে আসতেই রজত চৌধুরীর ঘাড়ে দোষ চাপান ব্যাঙ্ক ম্যানেজার

- জোর করে তাঁকে দিয়ে মুচলেখায় সইও করানো হয়

মৃতের পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে, ৩০৬ ধারায় আত্মহত্যায় প্ররোচনার মামলা দায়ের করেছে উলুবেড়িয়া থানার পুলিশ। তদন্তে নেমে ব্যাঙ্ক ম্যানেজার চিন্ময় দত্ত এবং অন্যন্য কর্মীদের জিজ্ঞাসাবাদ করতে চায় পুলিশ। খোঁজ চলছে অভিযুক্ত ব্যবসায়ী সোমনাথ ঘোষ ও তাঁর সহযোগী অমিত নায়েকের। 

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES