স্ত্রী-কে খুন করে মাটিতে পুঁতে রাখার ঘটনা বাড়ির মালিককে জানিয়ে ফেরার স্বামী

May 26, 2017 03:05 PM IST | Updated on: May 26, 2017 03:05 PM IST

#দুর্গাপুর :  দুর্গাপুরের বেনাচিতির উত্তরপল্লিতে খুন করে বাড়ির সীমানার মধ্যে সিমেন্টের মেঝেতে পুঁতে দেওয়ার অভিযোগ উঠল স্বামীর বিরুদ্ধে । মৃতার নাম রিনা বেগম (৩২) । মঙ্গলবার স্ত্রীকে খুন করে পুতে দিয়ে মার্বেল বসিয়ে দেয় স্বামী হায়দার সেখ ।

হায়দার সেখ বীরভূমের নানুরের বাসিন্দা, রাজমিস্ত্রীর কাজ করে । সে উত্তরপল্লিতে একটি বাড়িতে প্রায় ১৩ বছর ধরে ভাড়ায় থাকত । সেখানেই সে তার স্ত্রীকে খুন করে । গতকাল, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যে ৭ টা ১৩ মিনিটে খুনের কথা স্বীকার করে বাড়ির মালিক তরুণ রায়কে ফোন করে জানায় সে । সেইমত তরুনবাবু পুলিশকে জানান । রাতে বাড়িতে পাহারা বসায় পুলিশ । সকাল হতেই তল্লাশি শুরু করে পুলিশ । আসানসোল দুর্গাপুর পুলিশ কমিশনারেটের ডিসি ওয়ান অভিষেক মোদির নেতৃত্বে বিশাল পুলিশ বাহিনীর উপস্থিতিতে হায়দারের বাড়ির মেঝে খুঁড়ে তার স্ত্রী-র মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ । মৃতদেহ পুঁতে তার উপর টাইলস বসিয়ে দিয়েছিল হায়দার । মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য আসানসোল জেলা হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ । স্থানিয়দের সন্দেহ সম্ভবত সন্দেহের বশেই হায়দার তার স্ত্রীকে খুন করেছে ।

স্ত্রী-কে খুন করে মাটিতে পুঁতে রাখার ঘটনা বাড়ির মালিককে জানিয়ে ফেরার স্বামী

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, হায়দারের স্ত্রী শনিবার  তার দুই সন্তানকে নিয়ে বীরভূমের কীর্ণাহারে বাবার বাড়ি যায়। পরদিনই রবিবার ২১ তারিখ দুর্গাপুরে স্বামীর কাছে একাই ফিরে আসে । মঙ্গলবার বাবার বাড়ি যাচ্ছি বলে দুর্গাপুর থেকে ফের কীর্ণাহারে যায় হায়দারের স্ত্রী ৷ কিন্তুু বাবার বাড়ি আর পৌঁছয়নি হায়দারের স্ত্রী রিনা বেগম । পরদিন দুর্গাপুর থানার এ-জোন ফাঁড়িতে মিসিং ডায়রি করে মৃতার বাবা । মিসিং ডায়েরির সময় সেসময় উপস্থিত ছিল হায়দার শেখও । পুলিশ হায়দারকে সন্দেহের উর্ধ্বে না রেখে তদন্ত শুরু করে । হায়দারকে দু'দিনের মধ্যে তার স্ত্রীকে খুঁজে আনতে বলে, নাহলে তার উপরেই মামলা করা  হবে বলে ভয় দেখায় । পুলিশ হায়দারকে প্রতিদিন থানায় এসে দেখা করার জন্য বলে । এতেই সম্ভবত চাপে পড়ে হায়দার । গতকাল সন্ধ্যায় হায়দার বাড়ির মালিক তরুণ রায়কে ফোন করে জানায় সেই তার স্ত্রীকে খুন করে মাটির নীচে পুঁতে রেখেছে । তারপর থেকেই খোঁজ মিলছেনা হায়দারেরও, হায়দারের খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ ।

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES