ভুল চিকিৎসার অভিযোগ, হাত খোয়াতে বসেছেন পরিবারের একমাত্র অবলম্বন

Akash Misra | News18 Bangla
Updated:Mar 20, 2017 07:59 PM IST
ভুল চিকিৎসার অভিযোগ, হাত খোয়াতে বসেছেন পরিবারের একমাত্র অবলম্বন
Photo : AFP
Akash Misra | News18 Bangla
Updated:Mar 20, 2017 07:59 PM IST

#দুর্গাপুর: ফের কালিমালিপ্ত চিকিৎসাজগত । ভুল চিকিৎসার শিকার হয়ে নিজের হাত খোয়াতে বসেছেন এক রোগী । এমনই অভিযোগ উঠছে দুর্গাপুরের শোভাপুরের আইকিউ সিটি (বেসকারি) সুপারস্পেশালিটি হাসপাতাল বিরুদ্ধে।

দুর্গাপুরের কাঁকসার সুকনার বাসিন্দা তপন বাউড়ি কাজ করতেন বাঁসকোপার একটি বেসরকারী স্পঞ্জ আয়রন কারখানায় । দুই সন্তানের বাবা তপন বাউড়ি পরিবারের একমাত্র রোজগেরে । তিনি ২০১৬-র ডিসেম্বরের ২০ তারিখে শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা নিয়ে প্রথমে দুর্গাপুরের বিধাননগরে ইএসআই হাসপাতালে ভরতি হন । তারপর সেখানে থেকে ভরতি হন এই বেসরকারি নামী হাসপাতালটিতে ।

ওই হাসপাতালের চিকিৎসায় ভালও হয়ে উঠছিলেন তপনবাবু । এরপর যে অভিযোগটা তপনবাবু আর তাঁর পরিবারের পক্ষ থেকে উঠছে যে, ঠিক হয়ে যাওয়ার পরেও তপন বাবুর হাতে ইঞ্জেকশনের চ্যানেল করা ছিল । সুস্থ্য হয়ে উঠছেন বলে হাসপাতালের নার্সদের তপন বাবু ছুটি দিয়ে দিতে অনুরোধ করেন ।কিন্তু নার্সরা জানান যে তিনি এখনও সুস্থ হননি । অভিযোগ এরপর হাসপাতালের নার্সরা তপন বাবুর হাতের এই চ্যানেল দিয়ে একটা ইঞ্জেকশন দেয় । আর তারপরেই তার বাঁহাতের তালু আর আঙ্গুলগুলোতে অসহ্য যন্ত্রণা হতে থাকে এবং আঙ্গুলগুলো নীল হয়ে যেতে থাকে । এরপর আরো অভিযোগ উঠছে যে, হাসপাতাল থেকে তপনবাবুর পরিবারকে ডাকিয়ে এনে বন্ডে সই করতে বলা হয় এই মর্মে যে তপনবাবুর সুস্থতার জন্য তাঁর বাঁহাত কেটে বাদ দিতে হবে ।

কিন্তু তপনবাবুর পরিবার একপ্রকার বলতে গেলে জোর করেই সেই হাসপাতাল থেকে তপনবাবুকে ছাড়িয়ে নিয়ে ফের ইএসআই হাসপাতালে নিয়ে যান । আর সেখানকার চিকিৎসক তপনবাবুকে পরীক্ষা করেন এবং তিনি তাদের জানিয়েছেন , সম্ভবত ভুল ইঞ্জেকশনের জন্য এই অবস্থা হয়েছে । আর তার জন্যই তপনবাবুর হাত কাটতে হবে । এরপর অসহায় তপনবাবু শরনাপন্ন হন দুর্গাপুরের মহকুমা শাসক শঙ্খ সাঁতরার ।

শঙ্খ বাবু জানান, ওই হাসপাতালের জেনারেল ম্যানেজারের সাথে তপনবাবুর বিষয় নিয়ে কথা হয়েছে । তাকে হাসপাতালের সব থেকে উচ্চমানের চিকিৎসা দিয়ে সারিয়ে তুলতে হবে বলে নির্দেশ দিয়েছেন । হাসপাতাল কর্তৃপক্ষও চিকিৎসার দায়িত্ব নেবে বলেও কথাও দিয়েছেন মহকুমা শাসককে । রোগী সুস্থ হয়ে ওঠার পর, কি কারনে এই ঘটল তার পুর্ণ তদন্ত করা হবে বলে জানিয়েছেন দুর্গাপুরের মহকুমা শাসক শঙ্খ সাঁতরা ।

First published: 07:59:18 PM Mar 20, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर