গবাদি পশু বিধি নিয়ে কেন্দ্রকে নোটিশ সুপ্রিম কোর্টের

Jun 15, 2017 12:33 PM IST | Updated on: Jun 15, 2017 12:33 PM IST

#নয়াদিল্লি: জবাইয়ের জন্য বাজারে পশু কেনা-বেচা নিষিদ্ধ করার কেন্দ্রীয় নীতি নিয়ে জবাব তলব করে কেন্দ্রকে নোটিস পাঠাল সুপ্রিম কোর্ট ৷ বেআইনি কসাইখানা বন্ধে কেন্দ্রের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে মামলা করে এক স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা ৷

সেই মামলার পরিপ্রেক্ষিতে কসাইয়ের জন্য গরু মোষ কেনাবেচা নিষিদ্ধ ঘোষণা করার সিদ্ধান্ত নিয়ে কেন্দ্রের জবাব চাইল শীর্ষ আদালত ৷ এদিন দুটি পিটিশনের ভিত্তিতে বিচারপতি আর কে আগরওয়াল ও বিচারপতি এস কে কাউলের অবকাশকালীন বেঞ্চ কেন্দ্রের উদ্দেশ্যে নোটিশ জারি করেন ৷ দু’সপ্তাহের মধ্যে কেন্দ্রকে জবাব দেওয়ার নির্দেশ ৷ ১১ জুলাই মামলার পরবর্তী শুনানি ৷

গবাদি পশু বিধি নিয়ে কেন্দ্রকে নোটিশ সুপ্রিম কোর্টের

Picture Courtesy Reuters

চাষের কাজ ছাড়া পশুবাজারে কেনা যাবে না গরু, মোষ, বলদ, বাছুর এমনকি উটও। গত ২৩ মে এমনই নোটিশ জারি করে কেন্দ্র ৷ এই নির্দেশিকার অনুযায়ী, দেশের কোনও জায়গাতেই এবার থেকে গরু, মোষ-সহ গবাদি পশুকে হত্যা বা বিক্রি করা যাবে না ৷ পশুকল্যাণের হিতেই এই নতুন নিয়ম জারি করা হয়েছে ৷ বাজারে গবাদি পশু আনতে গেলে আগাম অনুমতি পত্র লাগবে ৷ যদি কেউ গরু বা মোষ কিনতে চান তাহলে তাকে সঠিক পরিচয় পত্র দিতে হয়ে যে সে পেশায় কৃষক ৷

এছাড়া রাজ্য সীমান্ত থেকে ২৫ কিলোমিটার ও দেশের সীমান্ত থেকে ৫০ কিলোমিটারের মধ্যে কোনও জায়গায় পশু-বাজার চালু করা যাবে না। সীমান্তে বোআইনি পশু পাচার রুখতেই এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে কেন্দ্রের তরফে ৷

বেশ কয়েকদিন ধরেই দেশজুড়ে গোহত্যা নিয়ে বির্তক তুঙ্গে ৷ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে হিংসা দেখা দিয়েছে। অনেকেই এই সিদ্ধান্তের বিরোধীতা করেছে কারণ এই সিদ্ধান্তের জেরে হাজার হাজার মানুষের কর্মসংস্থান বিপন্ন করছে।

কেন্দ্রের এই ফরমানের জেরে দেশজুড়ে সঙ্কটের মুখে ৮০ হাজার কোটির চামড়া শিল্প। দেশের চামড়াজাত পণ্যের সিংহভাগের যোগান বাংলা থেকেই যায় ৷ রাজ্যে কাজ হারাতে পারেন ৫০ হাজার শ্রমিক ও কারিগর ৷

এর আগে এই নির্দেশিকায় স্থগিতাদেশ দিয়েছিল মাদ্রাজ হাইকোর্ট ৷

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES