শাস্ত্রী আসতেই কোচের রেসে কি ক্রমশ পিছিয়ে পড়ছেন সেহওয়াগ ?

Jun 28, 2017 02:54 PM IST | Updated on: Jun 29, 2017 01:23 PM IST

#মুম্বই:  কোচের রেসে সেহওয়াগ কী ক্রমশ পিছিয়ে পড়ছেন ? আবেদনের দ্বিতীয় দফায় শাস্ত্রী রেসে নামতেই দ্রুত বদলাতে শুরু করেছে ছবিটা। ছুটি কাটাতে শাস্ত্রী আপাতত লন্ডনে। তবে সূত্রের খবর , তলে তলে বোর্ডের দুই শীর্ষকর্তার সঙ্গে যোগাযোগ রাখছেন রবি। ৯ জুলাই আবেদনের শেষ তারিখ। পরের সপ্তাহে নতুন আবেদনকারীদের নিয়ে ইন্টারভিউ হবে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বোর্ডের এক কর্তার মতে, এবার আর গতবারের ভুল করবেন না শাস্ত্রী। সশরীরেই প্রেজেন্টেশন দেবেন উপদেষ্টা কমিটির সামনে।

গতবার পাট্টায়ায় ছুটি কাটানোর ফাঁকে ভিডিও কনফারেন্সে ইন্টারভিউ দেন শাস্ত্রী। কুম্বলের প্রেজেন্টেশনের সামনে ধোপে টেকেনি শাস্ত্রীর ফিউচার রোডম্যাপ। হাজিরা নিয়ে সৌরভের সঙ্গে খুল্লমখুল্লা খটাখটিতে জড়িয়ে পড়েন। অনেকের মতে গতবার অতিরিক্ত আত্মবিশ্বাসই ডুবিয়েছিল শাস্ত্রীকে। এবার তাই আঁটঘাট বেঁধে নেমেছেন।

শাস্ত্রী আসতেই কোচের রেসে কি ক্রমশ পিছিয়ে পড়ছেন সেহওয়াগ ?

বোর্ডের সোর্স আরও বলছে, এবার আর কলকাতা নয়। কোচ-বাছার ইন্টারভিউ পর্ব হতে পারে শাস্ত্রীর শহর মুম্বইয়েই। এটা কি অন্য কোনও ইঙ্গিত? শাস্ত্রী ময়দানে নামছেন শুনেই বিরক্তি চাপা থাকেনি সৌরভের। এমনকি, কোহলি-কুম্বলে বিতর্ক সামলাতে ব্যর্থ বোর্ডকে খোঁচাও দিয়েছেন।

এসজিএমের ফাঁকেই সৌরভদের সঙ্গে আলাদা কথা বলেছেন বিনোদ রাই। নিরপেক্ষ প্রশাসক হিসেবে তাঁর এখন শাঁখের করাত। একবার বলছেন, ড্রেসিংরুমে শান্তি থাকবে, এমন কোচই কাম্য। তার মানে কি কোহলির পছন্দেই ঘুরিয়ে সায় ? পরক্ষণেই ব্যালান্স করছেন, উপদেষ্টারা চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন বলে। আসলে শাস্ত্রী প্রসঙ্গে সৌরভের আপত্তিটা অজানা নয় তাঁর কাছেও। বাজার গরম করতে শুরুতে শাস্ত্রী বলেছিলেন, চাকরির গ্যারান্টি না পেলে কারও সামনে ইন্টারভিউ নয়। এখন বেমালুম উল্টো গাইছেন।

ওদিকে জোর গুঞ্জন, লক্ষ্মণের সঙ্গে নিয়মিত ফোনে যোগাযোগ রাখছেন মুডি। ত্রিমুখী লড়াইয়ে পিছিয়ে পড়া সেহওয়াগ নাম তুলে নিতে পারেন, এমন সম্ভাবনাও ঘুরপাক খাচ্ছে। সেক্ষেত্রে সৌরভ-লক্ষ্মণরা কী বিদেশি মুডির দিকে ঝুঁকে পড়বেন ? উপদেষ্টা কমিটির সমীকরণ এখনও ২-১ শাস্ত্রীর বিপক্ষে। বোর্ড বা বিনোদ রাইরা শাস্ত্রীর পক্ষে ফুটনোট পাঠালে কি হবে ? শাস্ত্রীকে এত সহজে সৌরভ-লক্ষ্মণ গিলবেন, সম্ভাবনা কম। সেক্ষেত্রে উপদেষ্টা কমিটি থেকে বেরিয়ে যেতে পারেন কুম্বলের দুই বন্ধু। তবে তার আগে অন্য বাঁক নিতে পারে নাটক। আসরে নামতে পারেন চতুর্থ ব্যক্তি। কে সেই মিস্টার এক্স ? জানতে অপেক্ষা আরও কিছু সময়ের ৷

রিপোর্টার: প্রদীপ্ত গোস্বামী

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES