প্রভিডেন্ট ফান্ডের অ্যাকাউন্টে টাকা নেই, আতঙ্কে বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকারা

Apr 15, 2017 12:17 PM IST | Updated on: Apr 15, 2017 12:17 PM IST

#কোচবিহার: জীবনভর চাকরি করার পর অবসরের সময়ে হঠাৎ ধাক্কা । কিংবা মেয়ের বিয়ে দেওয়ার জন্য লোন নিতে গিয়ে আকাশ ভেঙে পড়ল মাথায়। প্রভিডেন্ট ফান্ডে জিরো ব্যালেন্স। অথচ প্রতি মাসেই পিএফের টাকা কাটা গেছে বেতন থেকে। তাহলে? স্কুলের প্রভিডেন্ট ফান্ডের অ্যাকাউন্টে তো কোনও টাকাই নেই। রীতিমত আতঙ্কে কোচবিহার জেলার বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকারা। সমস্যা কথা স্বীকার করে বিষয়টি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছে জেলা শিক্ষাদফতর।

আপার প্রাইমারি, হাইস্কুল মিলিয়ে কোচবিহারে তিনশোটি চোদ্দটি স্কুল। তার মধ্যে বেশিরভাগ স্কুলের প্রভিডেন্ট ফান্ডের ব্যালেন্স জিরো। ডি আই দফতরে জমা পড়ছে ভূরি ভূরি অভিযোগ।

প্রভিডেন্ট ফান্ডের অ্যাকাউন্টে টাকা নেই, আতঙ্কে বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকারা

পিএফ খাতে প্রতি মাসে বেতন থেকে টাকা কাটা হয়েছে। নিশ্চিন্তেই ছিলেন শিক্ষক শিক্ষিকারা। প্রয়োজনে এই ফান্ড থেকে টাকা তুলতে পারবেন। তাই যখন মেয়ের বিয়ে ঠিক হয় বা কেউ ক্যানসারে আক্রান্ত হন, তখন এই পিএফ-ই হয়ে ওঠে বড় ভরসার জায়গা । ভরসার এই জায়গাতেই আঘাত। লোনের আবেদন করতে গিয়ে দেখা যাচ্ছে, টাকাই নেই অ্যাকাউন্টে। ট্রেজারির সার্ভার দেখাচ্ছে স্কুলের ব্যালান্স জিরো । কিংবা নেগেটিভ।

জমানো লক্ষ লক্ষ টাকা কোথায় গেল তাই নিয়ে বাড়ছে আতঙ্ক। জেলা শিক্ষা দফতরে তাঁদের উদ্বেগের কথা জানান বিভিন্ন শিক্ষক সংগঠন। সমস্যার কথা স্বীকার করে সমাধানের আশ্বাস দিয়েছেন কোচবিহার জেলা পরিদর্শক।

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES