‘রাজ্য সরকার শান্তি চায়, সবার সঙ্গে কথা বলতে প্রস্তুত সরকার’, সর্বদল বৈঠকে বার্তা পার্থর

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Jun 22, 2017 05:57 PM IST
‘রাজ্য সরকার শান্তি চায়, সবার সঙ্গে কথা বলতে প্রস্তুত সরকার’, সর্বদল বৈঠকে বার্তা পার্থর
Photo : AFP
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Jun 22, 2017 05:57 PM IST

#দার্জিলিং:  মোর্চার ক্ষোভের আগুন নেভাতে আলোচনার পথেই আস্থা রাজ্যের। বনধ ও হিংসার পথ ছেড়ে আলোচনার টেবিলে বসুক মোর্চা। আজ সর্বদলীয় বৈঠক থেকে ফের বার্তা দিল রাজ্য সরকার। কিন্তু, আন্দোলনের জিগির বজায় রাখতে জিটিএ থেকে পদত্যাগ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিমল গুরুং-সহ মোর্চা সদস্যরা। গোর্খাল্যান্ডের দাবিকে সমর্থন জানিয়ে রাজনাথ সিংকে চিঠি পাঠিয়েছেন সিকিমের মুখ্যমন্ত্রী। ঘটনায় কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছে রাজ্য।

জ্বলছে পাহাড়। মোর্চার আন্দোলন থেকে আগুন-রক্তপাত-মৃত্যু। বাদ যায়নি কিছুই। কিন্তু, বৃহস্পতিবার সর্বদলীয় বৈঠক থেকে বিক্ষোভকারীদের ফের সহিষ্ণুতার বার্তাই দিল রাজ্য সরকার।

পার্থ চট্টোপাধ্যায় এদিন বলেন, ‘পাহাড়ে অশান্তি বন্ধ করতে হবে ৷ সম্পত্তির ক্ষয়ক্ষতি বন্ধ করতে হবে ৷ মুখ্যমন্ত্রী বারবার আাবেদন করেছেন ৷ কী কারণে এই আন্দোলন? আলোচনায় বসতে হবে মোর্চাকে ৷ পাহাড়ে রক্তপাত বন্ধ করতে হবে ৷’

শুধুমাত্র রাজ্য সরকারের পদক্ষেপেই কি পাহাড়ে শান্তিপ্রতিষ্ঠা হবে? পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের মন্তব্য, হিংসায় ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন দার্জিলিংবাসীই। তাই, হিংসা ও বনধের রাজনীতি ছেড়ে এগিয়ে আসতে হবে মোর্চাকেও। শিক্ষামন্ত্রী এদিন বলেন, ‘নিজেরাই আক্রমণ করছেন ৷ পাহাড়বাসীকে বিপদে ফেলছে ৷ পাহাড়ের মানুষের জন্য খাদ্য পৌঁছচ্ছে না ৷ রাজ্য সরকার শান্তি চায় ৷ সবার সঙ্গে কথা বলতে প্রস্তুত সরকার ৷ আমরা সহিষ্ণুতার পরিচয় দিতে চাই ৷’

প্রথম বারের সর্বদলীয় বৈঠক নিয়ে আশাবাদী রাজ্য। লক্ষ্য, পাহাড়ে শান্তিশৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনা।

First published: 05:57:50 PM Jun 22, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर