অমরনাথে জঙ্গি হানায় নিহত ৭ জন , তবে বাকি ৫০ জনকে বাঁচালেন বাস ড্রাইভার সেলিম-ই

Jul 11, 2017 05:47 PM IST | Updated on: Jul 11, 2017 05:51 PM IST

#শ্রীনগর: চারিদিকে ঘন অন্ধকার ৷ পাহাড়ি পথ ৷ তিন দিক থেকে এলোপাথাড়ি গুলি চলছে ৷ বাসের ভিতর গুলিতে আহতদের কাতরানি, চিল চিৎকার ৷ কিন্তু সেদিকে কানই দেননি বাস ড্রাইভার সেলিম গফুর ৷ তার একটাই লক্ষ্য, যা হয়ে যাক বাস থামানো যাবে না ৷ বাঁচাতেই হবে যাত্রীদের ৷

অমরনাথে জঙ্গিহানার ঘটনার পর যখন পুলিশ তদন্তে ব্যস্ত, তখন এক পাশে দাঁড়িয়ে যেন বার বার মনে করছিলেন পুরো ঘটনাটা ৷ মাথা নিচু করে, অ্যাক্সেলেটরে পা দিয়ে কীভাবে কয়েক কিলোমিটার বাস চালিয়ে এসেছেন, তা এখনও কিছুতেই বিশ্বাস করতে পারছেন না সেলিম ৷ শুধু একটাই আক্ষেপ ! ৫০ জনকে তো বাঁচাতে পারলাম, কিন্তু সবাইকে যদি পারতাম !

অমরনাথে জঙ্গি হানায় নিহত ৭ জন , তবে বাকি ৫০ জনকে বাঁচালেন বাস ড্রাইভার সেলিম-ই

সেলিমের কথায়, ‘আক্ষেপটা থেকে গেল ৷ খুব চেষ্টা করেছিলাম ৷ কিন্তু সবাইকে বাঁচাতে পারলাম না ৷ চোখের সামনেই জঙ্গিদের এলোপাথাড়ি গুলিতে লুটিয়ে পড়ছিলেন পূণ্যাথীর্রা ! মনে পড়লে গায়ে কাঁটা দিচ্ছে ! ’

কাশ্মীরের অনন্তনাগে সোমবার রাতে অমরনাথ যাত্রীদের একটি বাসকে লক্ষ্য করে জঙ্গিরা গুলি চালাতে শুরু করে ৷ জঙ্গিদের গুলিতে অন্তত সাত জন তীর্থযাত্রীর মৃত্যু হয়েছে বলে সংবাদসংস্থা পিটিআই সূত্রে খবর ৷ আহতের সংখ্যা কমপক্ষে ২০ ৷ জঙ্গিদের গুলিতে জখম হয়েছেন বেশ কিছু নিরাপত্তা কর্মীও বলে জানা যাচ্ছে ৷ অমরনাথ তীর্থযাত্রা থেকে ফেরার পথে হামলা চালায় জঙ্গিরা ৷

কাশ্মীরের আইজি মুনীর খান জানিয়েছে, হামলা চালিয়েছে লস্কর-এ-তৈবা জঙ্গি সংগঠন ৷ হামলার মূল চক্রী ছিলেন পাক জঙ্গি ইসমাইল ৷ হামলার একদিন আগে লস্করের একটি বড় ইউনিটেরউপর হামলা চালায় পুলিশ ৷

জঙ্গিরা প্রথমে STF, SOG ও CRPF এর উপর হামলা চালায় ৷ খান্নাবালে প্রথম হামলা চালায় ৷ খান্নাবালে হামলায় কেউ হতাহত হয়নি ৷ সেখান থেকে পালিয়ে বাতিঙ্গুতে বাতিঙ্গুতে তীর্থযাত্রীদের বাসে হামলা চালায় জঙ্গিরা ৷ নিহতেরা গুজরাতের বাসিন্দা ৷ নিহতদের নাম হাসুবেন রাতিলা পটেল, সুরক্ষা বেন, পটেল লক্ষ্মীবেন এস, গুজরাতের রতন জিনা ভাই পটেল, প্রজাপতি চম্পাবেন, মহারাষ্ট্রের ঠাকুর নির্মলা বেন ও ঊষা মোহনলা সরকার ৷

পুলিশ জানিয়েছে, নিরাপত্তার কারণে সন্ধে ৭টার পর হাইওয়ে দিয়ে বাস চলাচলে করাতে নিষেধাজ্ঞা রয়েচে ৷ কিন্তু মাঝরাস্তায় ব্রেকডাউন হয়ে যাওয়ায় দেরি হয়ে যায় বাসটির ৷ গুজরাটের বাসটি অমরনাথ যাত্রার জন্য রেজিষ্টার করা ছিল না ৷ ফলে বাসে ছিল নি পুলিশি নিরাপত্তা ৷

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES