আসলে কী কারণে সাসপেন্ড হল ঋতব্রত জানেন ?

Jun 03, 2017 09:48 AM IST | Updated on: Jun 03, 2017 09:48 AM IST

#কলকাতা: এক নয়, একাধিক অভিযোগ। মহিলাঘটিত অভিযোগে সাসপেন্ড ঋতব্রত বন্দ্যোপাধ্যায়। সিপিএমের রাজ্যসভার সাংসদের বিরুদ্ধে অভিযোগ রীতিমতো গুরুতর। উশৃঙ্খল জীবনযাত্রা, দলের নীতি না মানা, দায়িত্ব পালনে অবহেলার সহ একাধিক অভিযোগ রাজ্যসভার তরুণ সাংসদের বিরুদ্ধে। অভিযোগে সত্যতা খতিয়ে দেখতে মহম্মদ সেলিমের নেতৃত্বে তৈরি হয়েছে ৩ সদস্যের কমিশন। ২ মাসের মধ্যে রিপোর্ট দেবে কমিশন।

দলীয় নেতা-কর্মীদের থেকে অভিযোগ আসছিলই। সঙ্গে যোগ হল প্রাক্তন স্ত্রী সহ বেশ কয়েকজন অন্য মহিলাদের অভিযোগ। অবশেষে দলের তরুণ সাংসদ ঋতব্রতর বিরুদ্ধে কঠোর হল সিপিএম। ৩ মাসের জন্য সাসপেন্ড করা হল ঋতব্রত বন্দ্যোপাধ্যায়কে।

আসলে কী কারণে সাসপেন্ড হল ঋতব্রত জানেন ?

ঠিক কী কী অভিযোগ উঠেছে রাজ্যসভার তরুণ সাংসদের বিরুদ্ধে

-দীর্ঘদিন ধরে জীবনযাত্রা নিয়ে অভিযোগ আসছিল

-ঋতব্রতর বিরুদ্ধে দলের কাছে অভিযোগ জানান সাংসদের প্রাক্তন স্ত্রী সহ বেশ কয়েকজন মহিলা

-দলের গোপন তথ্য পাচারেরও অভিযোগ ছিল

-দলীয় সমর্থকের চাকরি খাওয়ার হুমকি দেওয়ায় তাঁকে সতর্ক করেছিল দল

-তারপরও সাংসদের আচরণে পরিবর্তন হয়নি

-নবান্ন অভিযানের দিন গুরুতর গাফিলতির অভিযোগ ওঠে তাঁর বিরুদ্ধে

-মহম্মদ সেলিমকে পুলিশের লাঠির মুখে ছেড়ে চলে যাওয়া

শৃঙ্খলার অভাব, দলীয় নীতি ও অনুশাসন না মানার অভিযোগ তো ছিলই। প্রাক্তন স্ত্রী ও অন্য কয়েকজন মহিলার আগুনে অভিযোগে আগুনে ঘি পড়ে। ঋতব্রতর বিরুদ্ধে অভিযোগ খতিয়ে দেখতে মহম্মদ সেলিমের নেতৃত্বে তৈরি হয়েছে কমিশন। অন্য দুই সদস্য মৃদুল দে ও

মদন ঘোষ।

সোশ্যাল মিডিয়ায় দলীয় সমর্থকের চাকরি খাওয়ার হুমকি দেওযায় ভৎসনার মুখে পড়েছিলেন ঋতব্রত। সেই ঘটনার জের গড়ায় পলিব্যুরো পর্যন্ত। এরই জেরে দলীয় সাংসদকে প্রকাশ্যে ভর্ৎসনাও করে সিপিএম রাজ্য কমিটি। ঋতব্রতকে নিয়ে দায় এড়াচ্ছে সিপিএম রাজ্য নেতৃত্বও।

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES