বিশ্ব বাংলা বাণিজ্য সম্মেলনের শুরুর দিনেই শিক্ষক চাকরিপ্রার্থীদের জন্য সুখবর পার্থর

Jan 20, 2017 06:47 PM IST | Updated on: Jan 21, 2017 12:56 PM IST

#কলকাতা: একদিকে রাজ্যে বাড়ছে শিল্পের জন্য বিনিয়োগ, অন্যদিকে রাজ্যের বেকার যুবক-যুবতীদের জন্য আশার কথা শোনালেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ৷ শীঘ্রই রাজ্যে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তরে শিক্ষক নিয়োগের প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে ৷

দীর্ঘদিন ধরে আইনি জটিলতায় আটকে রাজ্যের শিক্ষক নিয়োগ ৷ কখনও টেট মামলা, কখনও নিয়োগের নীতি নিয়ে প্রশ্ন তুলে হাইকোর্টের দ্বারস্থ বিভিন্ন মামলাকারী৷ এতে ক্রমাগত পিছিয়ে যাচ্ছে রাজ্যে শিক্ষক নিয়োগ ৷ উচ্চমাধ্যমিক, প্রাথমিক ও মাধ্যমিক তিন স্তরেও শিক্ষক নিয়োগের জন্য রাজ্য সব দিক থেকে প্রস্তুত হলেও মামলার বেড়াজালে আটকে ফলপ্রকাশ ৷ ক্রমাগত ক্ষোভ বাড়ছে রাজ্যের শিক্ষক পদে চাকরিপ্রার্থীদের মধ্যে ৷ তাদের ক্ষোভ ও উৎকণ্ঠা কমাতেই হিন্দু স্কুলের ২০০ বছরের বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানে পৌঁছে আরও একবার নিয়োগ প্রক্রিয়া দ্রুত সম্পন্ন করার আশ্বাস দিলেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ৷

বিশ্ব বাংলা বাণিজ্য সম্মেলনের শুরুর দিনেই শিক্ষক চাকরিপ্রার্থীদের জন্য সুখবর পার্থর

কিছুদিন আগেই স্কুলশিক্ষা দফতর জানায়, নবম-দশম, একাদশ-দ্বাদশের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ হওয়ার পরই উচ্চপ্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগের ইন্টারভিউ পর্ব শুরু করবে SSC ৷

আপার প্রাইমারির মতো উচ্চমাধ্যমিক স্তরেও বহু শিক্ষক পদ শূন্য ৷ তবে উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে শিক্ষক নিয়োগকে প্রাধান্য দেওয়ার পিছনে আরও কারণ রয়েছে ৷ উচ্চ প্রাথমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে শিক্ষকের বেতন কাঠামোর মধ্যে অনেকটাই ফারাক রয়েছে ৷ উচ্চ মাধ্যমিক স্তরে শিক্ষক নিয়োগ পরে হলে উচ্চ প্রাথমিকে নিযুক্ত হওয়া শিক্ষকরাও ওই পোস্টে আবেদন করবেন ৷ পরে তারা উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষকের চাকরি পেয়ে গেলে উচ্চ প্রাথমিকে শিক্ষকের পদটি পুনরায় শূন্য হয়ে যাবে ৷ নতুন করে নিয়োগের পরীক্ষা না হওয়া পর্যন্ত ওই পদে কাউকে নিযুক্ত করা যাবে না ৷

এই অসুবিধা এড়াতেই আগে অষ্টম শ্রেণী পর্যন্ত শিক্ষক নিয়োগের আগে একাদশ-দ্বাদশ স্তরে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া আগে সম্পূর্ণ করতে চাইছে কমিশন ৷

একইসঙ্গে এদিনের মঞ্চ থেকেই শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, স্কুল শিক্ষায় পরিকাঠামো সংস্করণে জোর দিচ্ছে রাজ্য ৷ রাজ্য সরকার প্রস্তুত। আইনি জট কাটলেই রাজ্যে প্রায় ৭০ হাজার শূন্যপদে শিক্ষক নিয়োগ হবে।

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES