প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে হুমকি কেসে মুচিপাড়ার লজে উদ্ধার হওয়া ল্যাপটপ নারদ সংস্থার

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Feb 15, 2017 08:12 PM IST
প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে হুমকি কেসে মুচিপাড়ার লজে উদ্ধার হওয়া ল্যাপটপ নারদ সংস্থার
Photo : AFP
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Feb 15, 2017 08:12 PM IST

#কলকাতা: মুচিপাড়ার লজে উদ্ধার হওয়া ল্যাপটপ নারদ সংস্থারই। এমনকি প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর স্টিং অপারেশনেও যে ম্যাথু স্যামুয়েল যুক্ত ছিলেন, তারও প্রমাণ পেয়েছে পুলিশ। যদিও নারদ কর্তা কলকাতা পুলিশকে জানিয়েছেন, মন্ত্রীকে হুমকি দিয়ে টাকা চেয়েছেন নারদের ছাঁটাই হওয়া কর্মী নিধিন চন্দ্রণ।

পুলিশের সন্দেহ যে ভুল নয়, তা কার্যত মেনেই নিলেন নারদ কর্তা ম্যথু স্যামুয়েল। মুচিপাড়ার লজ থেকে ল্যাপটপ উদ্ধারের পর মঙ্গলবার পুলিশ দাবি করে, প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর স্টিং অপারেশন করেছিলেন ম্যাথু স্যামুয়েল। এমনকি মন্ত্রীকে হুমকি দিয়ে টাকা চাওয়ার ঘটনাতেও জড়িত থাকতে পারেন নারদ কর্তা। এরপরই তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করে পুলিশ। কিন্তু তোলা চাওয়ার অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন ম্যথু। তাঁর দাবি,

- কয়েক মাস আগে উত্তরপ্রদেশ ও বিহারে কয়েকজন মন্ত্রীর স্টিং অপারেশন করা হয়

- সেই দলে ছিলেন নিধিন চন্দ্রণ

- ম্যাথুর সঙ্গেই নারদে চাকরি করতেন কেরলের বাসিন্দা নিধিন

- কোন ল্যাপটপে কার স্টিং অপারেশনের ফুটেজ আছে, তা জানা ছিল তাঁর

- কাজে গাফিলতির জন্য দু'মাস আগে ছাঁটাই করা হয় নিধিনকে

- এরপরই অফিস থেকে উধাও হয় একটি ল্যাপটপ

- ল্যাপটপ চুরি করে তথ্য ফাঁসের হুমকি দেয় নিধিন

- কেরল পুলিশের কাছে নিধিনের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের

মুচিপাড়ার লজে ঘর বুক হয় বিক্রম সিং-এর নামে। নিধিন চন্দ্রণই নাম ভাঁড়িয়ে ঘর বুক করেছিল বলে দাবি নারদ কর্তার। যে পরিচয়পত্র দেখানো হয়, সেটিও ভুঁয়ো বলে দাবি তাঁর। নিধিন সম্পর্কে যাবতীয় তথ্য কলকাতা পুলিশের কাছে পাঠিয়েছে ম্যাথু স্যামুয়েল। তাহলে আসল অভিযুক্ত কে, নিধিন? নাকি তাঁর নাম ভাঁড়িয়ে কিছু আড়াল করতে চাইছেন ম্যাথু। খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

First published: 08:11:32 PM Feb 15, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर