৩৬ দিনেই ‘ইতিহাস’, গঙ্গার নীচে তৈরি মেট্রোর টানেল

May 22, 2017 12:20 PM IST | Updated on: May 22, 2017 12:20 PM IST

#কলকাতা: অপেক্ষার অবসান। রবিবার হাওড়ার দিক থেকে গঙ্গার নীচ দিয়ে কলকাতার মাটি ছুঁল বহু প্রতীক্ষিত ইস্ট ওয়েস্ট মেট্রোর টানেল। ১৪ এপ্রিল কাজ শুরু করে টানেল বোরিং মেশিন রচনা। নির্ধারিত সময়ের আগেই শনিবার বিকেল চারটেয় গঙ্গা পেরল টিবিএম। যদিও,কলকাতার দিকে টানেলের প্রস্তাবিত পথে থাকা একুশটি বাড়ি নিয়ে তৈরি হয়েছে জটিলতা।

পঞ্চাশ নয়, ছত্রিশ দিনেই গঙ্গার নীচ দিয়ে কলকাতায় এসে পৌঁছল ইস্ট ওয়েস্ট মেট্রোর টানেল। ১৪ এপ্রিল গঙ্গার নীচে মাটি কাটা শুরু করে টানেল বোরিং মেশিন রচনা। শনিবার বিকেল চারটেয় কলকাতায় এসে পৌঁছল টানেল বোরিং মেশিন। গঙ্গার নীচে একটি অংশে টানেল তৈরির কাজ শেষ হল। কলকাতার দিকে গঙ্গার পাড় থেকে মহাকরণের পাশে স্ট্র্যান্ড রোড ও ব্রাবোর্ন রোড ধরে যাবে টানেল। যদিও এই পথে তৈরি হয়েছে নতুন করে জটিলতা।

৩৬ দিনেই ‘ইতিহাস’, গঙ্গার নীচে তৈরি মেট্রোর টানেল

টানেলের প্রস্তাবিত পথে একুশটি বাড়ি আছে যা বিপজ্জনক হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। বাসিন্দাদের সতর্ক করে ঠিকাদারি সংস্থার প্রতিনিধিরা বাড়িগুলিতে নোটিসও ধরিয়েছেন। এই নোটিস নিয়েই বড়বাজার থানা ও হেয়ার স্ট্রিট থানায় যান বাসিন্দারা। কলকাতা হাইকোর্টে ৬ জুন তাঁদের হাজির থাকতে বলেছেন বিচারপতি। মহাকরণের আগে কারেন্সি বিল্ডিং ও ইহুদিদের দু’টি সিনাগগ আছে। যেগুলি হেরিটেজ বিল্ডিংয়ের তালিকায় পড়ে। তাই এই বাড়িগুলির একশো মিটারের মধ্যে কাজ করা নিয়েও আইনি জটিলতা আছে। যদিও আইনে সংশোধনী আনা হবে বলে আগেই জানিয়েছে কেন্দ্র।

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES