RSS বিচারক-দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপকের বিরুদ্ধে FIR, তিক্ততা বাড়ল তৃণমূল-বিজেপিতে

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Jul 19, 2017 06:25 PM IST
RSS বিচারক-দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপকের বিরুদ্ধে FIR, তিক্ততা বাড়ল তৃণমূল-বিজেপিতে
Photo : AFP
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Jul 19, 2017 06:25 PM IST

#কলকাতা: বিজেপি নেত্রী নূপূর শর্মা এবং আসানসোলের বিজেপি নেতা তরুণ সেনগুপ্তের পর এবার রাষ্ট্রীয় স্বেচ্ছাসেবক সঙ্ঘের ‘বিচারক’ ও দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক রাকেশ সিনহার বিরুদ্ধে হিংসা ছড়ানোর উদ্দেশ্য উসকানিমূলক পোস্টের অভিযোগ উঠল ৷ অসমর্থিত সূত্রে খবর, RSS বিচারক (thinker) রাকেশ সিনহার বিরুদ্ধে ইতিমধ্যেই দায়ের হয়েছে FIR ৷ এই অভিযোগ ঘিরে উত্তপ্ত কেন্দ্র থেকে রাজ্যের রাজনৈতিক মহল ৷ ক্রমেই তিক্ততা বাড়ছে রাজ্যের শাসক ও বিরোধী দলের মধ্যে ৷

গত ৯ জুলাই সোস্যাল মিডিয়ায় তাঁর মায়ের মহাকাল মন্দিরে পুজো দেওয়ার ছবি পোস্ট করেন ৷ এই ছবিকেই হিংসা ছড়ানোর প্রচেষ্টা বলে মিথ্যে অভিযোগ করা হয়েছে বলে দাবি গেরুয়া শিবিরের ৷ রাজ্যের শাসক দল উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে ওই RSS বিচারক ও অধ্যাপকের বিরুদ্ধে হিংসা ছড়ানোর মিথ্যে অভিযোগ দায়ের করেছে ৷

বিজেপির তরফ থেকে আরও জানানো হয়েছে, গত ১২ তারিখ জামিন অযোগ্য ধারায় রাকেশ সিনহার নামে মামলা দায়ের হয় ৷ যদিও রাজ্য পুলিশের তরফ থেকে এই সংক্রান্ত কোনও তথ্য মেলেনি ৷ অধ্যাপক রাকেশ শর্মার দাবি, মমতা সরকার তাঁর বিরুদ্ধে উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে এই অভিযোগ এনেছে ৷ রাজনৈতিক প্রতিহিংসা চরিতার্থ করার জন্যই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে ৷ তবে কোনও FIR-ই তাঁর মুখ বন্ধ করতে পারবে না বলে দাবি এই RSS সদস্যের ৷

বাংলায় পুরসভা ও পঞ্চায়েত নির্বাচনে এখন অনেক সময় বাকি থাকলেও বিজেপি ও তৃণমূলের দ্বন্দ্ব ও উত্তাপ ক্রমাগত বেড়েই চলেছে ৷

গুজরাতের ছবি বসিরহাটের ঘটনা বলে ফেসবুকে পোস্ট করে বিতর্কে জড়িয়েছিলেন বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মা ৷ এবার বিজেপির আসানসোল আইটি সেল ইনচার্জ তরুণ সেনগুপ্তের বিরুদ্ধে ওঠে একইধরনের অভিযোগ ৷ হিন্দুর উপর লাঠিচার্জ করছে মুসলিম পুলিশ অফিসার ৷ ভিনরাজ্যের একটি বিচ্ছিন্ন ঘটনার ভিডিও পোস্ট করে সিউড়িতে হনুমান জয়ন্তীর দিন লাঠিচার্জের ঘটনা বলে উল্লেখ করেন আসানসোলের ওই বিজেপি নেতা ৷

সম্প্রতি ফেসবুকে এক কিশোরের কিছু পোস্টকে ঘিরেই উত্তেজনা ছড়ায় উত্তর চব্বিশ পরগনারর বিস্তীর্ণ এলাকায়। গ্রেফতার করা হয় কিশোরকে। তারপর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ার পোস্ট নিয়ে সতর্ক রাজ্য ৷

First published: 06:25:09 PM Jul 19, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर