নিষিদ্ধ হওয়ার পরও লালবাতি ব্যবহার করে বিতর্কে তৃণমূল মন্ত্রী

May 29, 2017 02:04 PM IST | Updated on: May 29, 2017 02:04 PM IST

#কলকাতা: বরকতির পর এবার লালবাতি বিতর্কে অরূপ বিশ্বাস ৷ সম্প্রতি কলকাতার টিপু সুলতান মসজিদের প্রাক্তন ইমাম বরকতির গাড়িতে লালবাতি ব্যবহার নিয়ে তৈরি হয় দেশজোড়া বিতর্ক ৷ পুলিশের হস্তক্ষেপে ইমামের গাড়ির মাথা থেকে লালবাতি খুলে নেওয়া হলেও রাজ্যের পূর্ত ও ক্রীড়ামন্ত্রী অরূপ বিশ্বাসের গাড়িতে এখনও উপস্থিত লালবাতি ৷ এই ঘটনা সামনে আসতেই ফের তৈরি হয়েছে বিতর্ক ৷

ভিআইপি সংস্কৃতি ঘোচাতে গাড়িতে লালবাতি ব্যবহার নিষিদ্ধ করেছে মোদি সরকার ৷ পয়লা মে থেকে গোটা দেশে কার্যকর হয়েছে এই সিদ্ধান্ত ৷ নতুন নির্দেশ অনুযায়ী, অ্যাম্বুলেন্স, দমকলের মত জরুরি পরিষেরার সঙ্গে যুক্ত গাড়িতেই শুধুমাত্র নীল আলো লাগানো যাবে।

নিষিদ্ধ হওয়ার পরও লালবাতি ব্যবহার করে বিতর্কে তৃণমূল মন্ত্রী

শুধুমাত্র রাষ্ট্রপতি, উপ-রাষ্ট্রপতি, দেশের প্রধান বিচারপতি ও লোকসভার স্পিকারের মতো ব্যক্তিত্বদের গাড়ি ছাড়া আর কোনও নেতা-মন্ত্রীর গাড়িতে লাল বাতি লাগানো যাবে না ৷ এই নির্দেশের পরও মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাসের গাড়িতে লাল বাতি থাকায় উঠেছে প্রশ্ন ৷

এবিষয়ে পূর্ত, ক্রীড়া ও যুবকল্যাণ মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাসকে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, ‘আমাদের সরকার এখনও লালবাতি নিষিদ্ধ করেনি ৷’

এর আগে টিপু সুলতান মসজিদের মৌলানা নুরুর রহমান বরকতিকেও প্রধানমন্ত্রী মোদির লালবাতি নিষিদ্ধকরণের নির্দেশ সম্পর্কে জানানো হলে তিনি তা উড়িয়ে দিয়ে তখন দাবি করেছিলেন, ‘আমার কাছে ব্রিটিশ সরকারের অনুমতি আছে ৷ গাড়িতে লাল বাতি লাগানোর এই অনুমতি আর কারোর কাছে নেই ৷ কেন্দ্রীয় সরকারের লালবাতি বন্ধ করার কোনও ক্ষমতাই নেই ৷ ভারত সরকারের আগে নিজেদের আইন তৈরি করা উচিত ৷’ পরে পুলিশি হস্তক্ষেপে খুলে নেওয়া হয় বরকতির গাড়ির বাতি ৷ এঘটনার প্রভাবে পরে ইমাম পদ থেকেও বহিষ্কৃত করা হয় মৌলানা নুরুর রহমান বরকতিকে ৷

শাসক দলের মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাসের লালবাতি ব্যবহার নিয়ে তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায়কে প্রশ্ন করা হলে তিনি এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করতে রাজি হননি ৷

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES