আপাতত গ্রেফতার নয় বাবুল সুপ্রিয়, স্থগিতাদেশ মেয়াদ বাড়াল হাইকোর্ট

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Apr 28, 2017 01:30 PM IST
আপাতত গ্রেফতার নয় বাবুল সুপ্রিয়, স্থগিতাদেশ মেয়াদ বাড়াল হাইকোর্ট
Photo : AFP
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Apr 28, 2017 01:30 PM IST

 #কলকাতা: আপাতত কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়কে গ্রেফতার করা হবে না । শুক্রবার আলিপুর আদালতের গ্রেফতারি পরোয়ানার উপর স্থগিতাদেশের মেয়াদ বাড়াল কলকাতা হাইকোর্ট। এদিন অভিযোগকারী মহুয়া মৈত্রকে ভর্ৎসনাও করে আদালত।

বাবুলের বিরুদ্ধে মহুয়ার অভিযোগকে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে মন্তব‍্য করেন ৷ বিচারপতি জয়মাল্য বাগচি বলেন, বিষয়টি নিয়ে হাইকোর্টের মূল্যবান সময় নষ্ট হচ্ছে। এক্ষেত্রে ৫০৯ ধারায় (মহিলার উদ্দেশে অশালীন শব্দ ব্যবহার বা অঙ্গভঙ্গি) মামলা হয় না। আদালতের বাইরে সমস্যা মেটানোর পরামর্শ দিয়েছেন বিচারপতি বাগচি।

গত ১০ মার্চ কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়-র বিরুদ্ধে জারি হয়েছিল গ্রেফতারি পরোয়ানা ৷ তৃণমূলনেত্রী মহুয়া মৈত্র-র অভিযোগের ভিত্তিতেই বাবুল সুপ্রিয়ের বিরুদ্ধে আলিপুর আদালতে চার্জশিট জমা দিল কলকাতা পুলিশ ৷ চলতি বছরের ৪ জানুয়ারি আলিপুর থানায় বাবুল সুপ্রিয়ের নামে অভিযোগ দায়ের করেছিলেন তৃণমূলনেত্রী মহুয়া মৈত্র ৷ একটি টিভি চ্যানেলে শো-চলাকালীন মহুয়া মৈত্রেক কটূক্তি করার অভিযোগই উঠেছে বাবুলের নামে৷

অভিযোগ জমা পড়ার পর বাবুলকে ডেকে পাঠায় আলিপুর থানা ৷ থানায় না যাওয়ায় গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি হয় বাবুলের বিরুদ্ধে ৷

অশালীন মন্তব্য করার অভিযোগ তুলে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়র বিরুদ্ধে আলিপুর থানায় এফআইআর দায়ের করেছিলেন তৃণমূল বিধায়ক মহুয়া মৈত্র। জানুয়ারি মাসের ৩ তারিখ একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে ‘লাইভ’ বিতর্কে অংশ নিয়েছিলেন বাবুল ও মহুয়া। মহুয়ার অভিযোগ, বিতর্ক চলাকালীন তাঁর উদ্দেশে কটূক্তি’ করেন বাবুল।

বাবুলের ঠিক কোন মন্তব্যের ভিত্তিতে এবার মানহানির মামলা করতে চলেছেন মহুয়া মৈত্র ? সেটাও জানিয়েছেন তৃণমূল বিধায়ক ৷ শো চলাকালীন বাবুল মন্তব্য করেন , ‘‘মহুয়া তুমি কি মহুয়া খেয়ে আছো ?’’ যার সঙ্গে সেভাবে কোনও ঘনিষ্ঠতা নেই তাঁর ৷ একটা নিউজ চ্যানেলের অনুষ্ঠানে এসে কীভাবে এই কটূক্তি করতে পারেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ? এমনটাই বক্তব্য মহুয়ার ৷ তিনি যে এর শেষ দেখে ছাড়বেন, সেটাও স্পষ্ট করে দিয়েছেন তৃণমূল বিধায়ক ৷

First published: 01:30:21 PM Apr 28, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर