ডেরায় হতে থাকা ধর্ষণের ঘটনা প্রথম প্রকাশ্যে আনেন এই ব্যক্তি

Dolon Chattopadhyay | News18 Bangla
Updated:Aug 26, 2017 01:41 PM IST
ডেরায় হতে থাকা ধর্ষণের ঘটনা প্রথম প্রকাশ্যে আনেন এই ব্যক্তি
Photo : AFP
Dolon Chattopadhyay | News18 Bangla
Updated:Aug 26, 2017 01:41 PM IST

#চণ্ডীগড়: ২০০২ সালের ধর্ষণ মামলায় দোষী সাব্যস্ত স্বঘোষিত ধর্মগুরু গুরমিত রাম রহিম। তার বিরুদ্ধে মিথ্যে সাক্ষ্য দেওয়া, প্রমাণ নষ্ট ও প্রভাব খাটানোর অভিযোগও প্রমাণিত। আগামী সোমবার তার বিরুদ্ধে সাজা ঘোষণা করবে পাঁচকুলার বিশেষ সিবিআই আদালত। শুধু ধর্ষণের ঘটনাতেই ৭ থেকে ১০ বছরের জন্য জেল খাটতে হতে পারে রাম রহিমকে। দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পরই তাকে সেনাঘাঁটিতে নিয়ে যাওয়া হয়।

২০০২ সালে প্রথম এই ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসে ৷ এই মামলায় সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন সাংবাদিক রাম চন্দর ছত্রপতি ৷ ১৫ বছর আগে তিনিই ধর্ষণের ঘটনাটি প্রকাশ্যে নিয়ে আসেন ৷ এর জেরে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে গুলি করে তাকে হত্য করা হয় ৷

২০০২ সালে ডেরার ভিতর হয়ে থাকা মহিলাদের উপর যৌন হেনস্থার কথা চিঠি লিখে জানিয়েছিলেন কয়েকজন অজ্ঞাতপরিচয় মহিলা ৷ এই চিঠি পাওয়া পর ছত্রপতি এই ঘটনার তদন্ত শুরু করেন ৷ পুরা সাচ নামে সংবাদপত্রে তিনি সেই সময় আশ্রমিকদের উপর হওয়া যৌন নির্যাতনের একাধিক মর্মান্তিক ঘটনা প্রকাশ্যে নিয়ে আসেন ৷

চিঠিগুলি সংবাদমাধ্যমে ছাপার কয়েকদিন পর ২৪ অক্টোবর ২০০২ সালে ছত্রপতির উপর হামলা করা হয় ৷ রিপোর্টে জানা যায় বাড়ি থেকে ডেকে পাঁচি গুলি করা হয় তাকে লক্ষ্য করে ৷ ২১ নভেম্বর ২০০২ সালে দিল্লির অ্যাপোলো হাসপাতালে তার মৃত্যু হয় ৷ ছত্রপতির হত্যা মামলা এখনও আদালতে চলছে ৷

First published: 01:35:48 PM Aug 26, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर