ছেলের বদলে মেয়ে! রাগে ছোট্ট নাতনির গোপনাঙ্গ পুড়িয়ে দিল ঠাকুমা

Jul 23, 2017 11:02 AM IST | Updated on: Jul 23, 2017 11:02 AM IST

#চণ্ডীগড়: প্রতিবারই নাতির কামনা করেন, কিন্তু ঘরে আসে নাতনি ৷ বংশ এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার এরপর আর কেউ থাকবে না, এই ক্ষোভে ও হতাশায় প্রবল আক্রমণাত্মক হয়ে এক চরম পদক্ষেপ নিলেন প্রবীণা ৷

হতাশায় ক্ষোভে মেয়ে হওয়ার অপরাধে নিজেরই নাতনির গোপানাঙ্গ পুড়িয়ে দিলেন ঠাকুমা ৷ নৃশংস এই ঘটনাটি ঘটেছে হরিয়ানার সিরসা জেলার ডিং শহরে ৷ ঘটনাটি দিন কয়েক আগে ঘটলেও শিশু সুরক্ষা কমিটির প্রচেষ্টাতেই সামনে এল এই ঘটনা ৷ দায়ের হল অভিযোগ ৷

ছেলের বদলে মেয়ে! রাগে ছোট্ট নাতনির গোপনাঙ্গ পুড়িয়ে দিল ঠাকুমা

Representational Image

বংশে নাতি নেই এই আপশোষে দীর্ঘদিন ধরে ক্ষোভে হতাশায় ভুগছিলেন অভিযুক্তা প্রৌঢ়া ৷ তিন-তিনবার পুত্র সন্তানের আশায় বুক বাঁধলেও ঘরে আসে কন্যা ৷ এই রাগে দীর্ঘদিন ধরে নাতনিদের ক্ষতি করার অভিপ্রায় মনের মধ্যে পুষে রেখেছিলেন প্রবীণা ৷ সুযোগ পেয়ে চার বছর বয়সী ছোট্ট শিশু কন্যাটির উপর ফলালেন নিজের রাগ ৷ লোহার চিমটে গরম করে ছোট শিশুটির গোপানাঙ্গে চেপে ধরেন প্রবীণা ৷ জানা গিয়েছে, যন্ত্রণায় ছটফট করতে করতে শিশুটি অজ্ঞান না হওয়া অবধি তাঁর গোপনাঙ্গ গরম চিমটে ধরে রেখেছিল তাঁর ঠাকুমা ৷

এমন ঘটনা লুকিয়েই রাখতে চেয়েছিল শিশুটির পরিবার ৷ খবর পেয়ে সিরসায় গিয়ে শিশু সুরক্ষা কমিটি অসুস্থ শিশুটিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন ৷ শিশু সুরক্ষা কমিটির আধিকারিকরা জানিয়েছেন, এই প্রথম নয়, ওই পরিবারের অন্য সদস্যরাও কন্যা সন্তান হওয়ার কারণে শিশুটির উপর শারীরিক নির্যাতন চালাত ৷

দেশের কন্যা সন্তানদের সুরক্ষার জন্য সরকারের একের পর এক প্রকল্প ৷ মোদির বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও কিংবা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কন্যাশ্রী প্রকল্পের বিপুল সাফল্যের পরও দেশের বিভিন্ন কোনায় এমন ঘটনার ভুরি ভুরি উদাহরণ মেলে, যেখানে শুধু মাত্র কন্যা সন্তান হওয়াটাই অপরাধ ৷

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES