‘গুরুংকে দার্জিলিঙে ঢুকতে দেওয়া হোক’, ফের গুরুঙের পাশে দিলীপ ঘোষ

Akash Misra | News18 Bangla
Updated:Oct 25, 2017 10:19 AM IST
‘গুরুংকে দার্জিলিঙে ঢুকতে দেওয়া হোক’, ফের গুরুঙের পাশে দিলীপ ঘোষ
Dilip Ghosh
Akash Misra | News18 Bangla
Updated:Oct 25, 2017 10:19 AM IST

#শিলিগুড়ি: ফের বিমল গুরুঙের পাশে দিলীপ ঘোষ ৷ বুধবার নিউ জলপাইগুড়িতে গুরুংকে দার্জিলিঙে ঢুকতে দেওয়ার দাবি তুললেন দিলীপ ঘোষ ৷

দিলীপ ঘোষের কথায়, ‘অমিতাভ মালিকের মৃত্যু রহস্যজনক ৷ সিআইডি তদন্ত হলে সব ধামাচাপা পড়বে ৷ পাহাড়ের আন্দোলন নিয়েও তদন্ত প্রয়োজন ৷ কেন্দ্রীয় সংস্থা দিয়ে তদন্ত হোক ৷ বিমল গুরুংকে কিষেণজি বানানোর চেষ্টা ৷ গুরুংকে দার্জিলিঙে ঢুকতে দেওয়া হোক ৷ ’

এর আগেও বিমল গুরুঙের পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ ৷ অক্টোবর মাসের প্রথম দিকে পাহাড়ে সফরে দিলীপ ঘোষ বলেছিলেন, পাহাড়ের নেতা বিমল গুরুংই। বিনয় তামাং পিছন থেকে আন্দোলনকে ছুরি মেরেছেন। পাহাড় সফরে গিয়ে একই সঙ্গে তাঁর দাবি, পাহাড়ে শান্তি ফেরাতে তিনিই উদ্যোগ নিয়েছেন।

গুরুংকে পাহাড়ের নেতা বলে সম্বোধন করেন তিনি ৷ এদিন নিউ জলপাইগুড়িতে বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘পাহাড়ের নেতা বিমল গুরুংই ৷ বিনয় তামাং পাহাড়ের নেতা নন ৷ উনি পিছন থেকে আন্দোলনকে ছুরি মেরেছেন ৷ ওনার সঙ্গে পাহাড়ের লোকজন নেই ৷’

শুধু তামাং নয় রাজ্যের শাসক দলের বিরুদ্ধেও দিলীপ ঘোষ অভিযোগ করেন ৷ তিনি বলেন, ‘পাহাড় নিয়ে আমাদের অবস্থান স্পষ্ট ৷ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁর অবস্থান স্পষ্ট করুন ৷’

বিজেপি রাজ্য সভাপতির বিরুদ্ধে পাল্টা তোপ দাগেন মোর্চা নেতা অনীত থাপা। পাহাড়ের আন্দোলনে কী ভূমিকা রয়েছে দিলীপ ঘোষের? প্রশ্ন তোলেন অনীত।

অন্যদিকে, দিলীপের এই মন্তব্যে তীব্র প্রতিক্রিয়া দেখা গিয়েছে ঘাসফুল শিবিরে ৷ ‘উস্কানিমূলক রাজনীতি করছে বিজেপি।’ কটাক্ষ তৃণমূল নেতা গৌতম দেবের ।

এদিকে দিলীপ ঘোষের এই সফরের বিরুদ্ধে সোচ্চার পাহাড়ের দলগুলি। দিলীপের বিরুদ্ধে কালিম্পঙে পোস্টার দিয়েছে জন আন্দোলন পার্টি। এদিন তাঁকে কালো পতাকা দেখাবে জিএনএলএফ।

এই ঘটনায় উদাসীন দিলীপ ঘোষের প্রতিক্রিয়া, ‘পাহাড়ে এখন বন্্ধ প্রত্যাহার হয়েছে ৷ আলোচনার পরিবেশ তৈরি হয়েছে ৷ যারা পাহাড়ে অশান্তি ছড়িয়েছিল ৷ তারাই আমার সফরে অশান্তির আশঙ্কা করছে ৷’

বিক্ষোভের মুখে দিলীপ ঘোষ। দার্জিলিং চকবাজারে বিক্ষোভের জেরে বাতিল হয়ে গেল দিলীপের সভা। গতকাল গোর্খাল্যান্ড নিয়ে দিলীপের মন্তব্য ঘিরে আজ বিক্ষোভ শুরু হয়। দিলীপ ঘোষকে লক্ষ করে গো ব্যাক স্লোগান দিতে থাকে বিমলপন্থীরা।

দার্জিলিঙের জিডিএনএস হলে আলোচনা সভা ছিল বিজেপি রাজ্য সভাপতির। সেখানে মঞ্চেই দিলীপ ঘোষকে ঘিরে বিক্ষোভ চলতে থাকে।

এদিন দার্জিলিঙের জিডিএনএস হলে বিজেপির সভা ঘিরে ধুন্ধুমার। আজ সেখানে দিলীপ ঘোষের সভার কথা ছিল। দিলীপ ঘোষ সভামঞ্চে থাকাকালীন মঞ্চে পাথর ছোড়া হয়। দেখানো হয় কালো পতাকা। দেওয়া হয় গো ব্যাক স্লোগানও। এরপর, অবশ্য বিজেপির সভা বানচাল হয়ে যায়। সেখান থেকে বেরোনর সময় বিজেপি কর্মীদের ওপর লাঠি-জুতো নিয়ে চড়াও হয় মোর্চা। রাস্তার ওপর ফেলে তাদের মারধর করা হয়। বেগতিক দেখে পুলিশের আশ্রয় নিতে হয় বিজেপি নেতাদের।

এদিন, ঘুমেও দিলীপ ঘোষকে ঘিরে প্রথমে বিক্ষোভ দেখায় জিএনএলএফ। চকবাজার এলাকায় তাঁকে ঘিরে চলে বিক্ষোভ। দিলীপ ঘোষকে কালো পতাকা দেখান মহিলারা। চকবাজারে সভার কথা থাকলেও তা আর হয়ে ওঠেনি।

First published: 10:19:33 AM Oct 25, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर