ডেঙ্গিতে শহরে ৩ বছরের শিশুর মৃত্যু, বাড়ছে ডেঙ্গি ও অজানা জ্বরে মৃতের সংখ্যা

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Oct 29, 2017 08:32 AM IST
ডেঙ্গিতে শহরে ৩ বছরের শিশুর মৃত্যু, বাড়ছে ডেঙ্গি ও অজানা জ্বরে মৃতের সংখ্যা
Representational Image
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Oct 29, 2017 08:32 AM IST

 #কলকাতা: কলকাতায় ফের ডেঙ্গিতে মৃত্যু। বেসরকারি হাসপাতালে মৃত সাড়ে তিন বছরের শিশু। বারাসত, আড়িয়াদহ, লাউহাটির তিন আক্রান্তেরও মৃত্যু শনিবার। অজানা জ্বরে প্রাণ গেল উত্তর চব্বিশ পরগনায় আরও তিনজনের।​

ডেঙ্গি ও জ্বরে মৃত্যু চলছেই। শনিবার কলকাতা ও সংলগ্ন উত্তর চব্বিশ পরগনা জেলাতেই আরও ছ’জনের মৃত্যু হয়েছে। সেইসঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে জেলা ও অন্যান্য হাসপাতাল থেকে কলকাতায় রেফারের পালাও।

রাজ্যে ডেঙ্গি ও জ্বরে মৃতের সংখ্যা ক্রমশই বাড়ছে। শনিবার, আরও কয়েকজনের মৃত্যু হল।

বেলঘরিয়া

গত দু’তিন ধরে জ্বরে ভুগছিলেন বেলঘরিয়ার আড়িয়াদহের বাসিন্দা প্রদীপ দেব। ভরতি ছিলেন বাইপাসের ধারে একটি নার্সিংহোমে।শনিবার সকালে তাঁর মৃত্যু হয়। পরিবারের দাবি, এনএস ওয়ান পরীক্ষায় তাঁর ডেঙ্গি ধরা পড়েছে। যদিও, ডেথ সার্টিফিকেটে মাল্টি অর্গান ফেলিওরে মৃত্যু বলেই লেখা।

অশোকনগর

শনিবার সকালে আরজি কর হাসপাতালে মৃত্যু হয়েছে ষষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রের। অশোকনগরের বাঁশপুল পঞ্চায়েতের ভাতসালার বাসিন্দা সুজয় বিশ্বাস গত কয়েকদিন ধরেই জ্বরে ভুগছিলেন। তাকে হাবরা হাসপাতাল থেকে আরজি করে রেফার করা হয়।

বাদুড়িয়া

গত আট দিন ধরে জ্বরে ভুগছিলেন বাদুড়িয়ার মাচিয়া গ্রামের বাসিন্দা পিঙ্কি বিবি। শুক্রবার রাতে বারাসত হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে মৃত্যু হয়।

বারাসত

গত রবিবার থেকে জ্বরে ভুগছিলেন বেড়াচাঁপা এক নম্বর পঞ্চায়েতের কাউকেপাড়ার বাসিন্দা লায়লা বিবি। শুক্রবার রাতে চিত্তরঞ্জন মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মারা যান তিনি। জ্বরে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে বারাসতের বাউআটির আজমিরা বিবি নামে এক বাসিন্দারও। অন্যদিকে, ডেঙ্গি আক্রান্ত হয়ে কেস্টপুরেও এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে।

First published: 08:32:28 AM Oct 29, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर