ধর্ষণে দোষী রাম রহিম, যাবজ্জীবনের সাজাই চাইবে CBI

Dolon Chattopadhyay | News18 Bangla
Updated:Aug 28, 2017 01:30 PM IST
ধর্ষণে দোষী রাম রহিম, যাবজ্জীবনের সাজাই চাইবে CBI
Photo : AFP
Dolon Chattopadhyay | News18 Bangla
Updated:Aug 28, 2017 01:30 PM IST

#রোহতক: আজ ধর্ষণে অভিযুক্ত ডেরা বাবা রাম রহিম সিংয়ের সাজা ঘোষণা করা হবে। আজ এই রোহতকের সুনারিয়া জেলে বসবে বিশেষ সিবিআই আদালত। জেলের ভিতরে তৈরি হওয়া অস্থায়ী এজলাসে গিয়েই বিচারক জগদীপ সিং আজ রাম রহিম সিংয়ের সাজা ঘোষণা করবেন। বিচারককে বিশেষ নিরাপত্তায় হেলিকপ্টারে জেলে নিয়ে যাওয়া হবে। গত শুক্রবার, রায় ঘোষণার পর ডেরা অনুগামীদের তাণ্ডব দেখেছিল গোটা দেশ। সেই পরিস্থিতির পুনরাবৃত্তি যাতে না হয় সেজন্য সতর্ক পুলিশ-প্রশাসন। কোন ঝুঁকি নিচ্ছে না হরিয়ানা সরকার। পঞ্চকুলা, চণ্ডীগড়কে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তায় মুড়ে ফেরা হয়েছে। কার্যত দুর্গের চেহারা নিয়েছে রোহতক। জায়গায় জায়গায় মোতায়েন তেইশ কোম্পানি আধা সেনা। রয়েছে পুলিশও। নিরাপত্তায় মুড়ে ফেলা হয়েছে ডেরার সদর দফতর সিরসা। আকাশপথে নজরদারি। হরিয়ানা ও পঞ্জাবে বন্ধ ইন্টারনেট পরিষেবা।

সূত্রের খবর,  রাম রহিমের যাবজ্জীবনের সাজাই চাইবে CBI ৷

রাম রহিমের সাজা ঘোষণার আগে রোহতকের সুনারিয়া জেলে নিরাপত্তায় রদবদল। জেল লাইব্রেরি হয়ে উঠেছে অস্থায়ী কোর্ট রুম। জেলে ৬ স্তরীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা করা হয়েছে। জেলের ৩ কিমির মধ্যে মোতায়েন রয়েছে বিএসএফ। ৩ কিমির মধ্যে নাকা চেক পয়েন্টর প্রত্যেকটিতে রয়েছে ২৫ জওয়ান। ৩ কিমির মধ্যে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা। উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির প্রবেশ দেখলেই শ্যুট অ্যাট সাইটের নির্দেশ দেওয়া রয়েছে।

আজ সকাল থেকেই থমথমে পাঁচকুলা ও সিরসা। দোকান-বাজার বন্ধ। ছুটি দিয়ে দেওয়া হয়েছে বেশিরভাগ স্কুল-কলেজ।রাস্তায় ছড়িয়ে ডেরা সমর্থকদের তাণ্ডবের ছবি। আতঙ্কে রয়েছেন বাসিন্দারা। কয়েকজন সকালে রাস্তায় বেরোলেও, এলাকা সুনসান। সকাল থেকে নিরাপত্তা আরও জোরদার করা হয়েছে। রাস্তায় টলহ দিচ্ছে সেনা। নতুন করে অশান্তি এড়াতে চলছে কড়া নজরদারি। হরিয়ানার ১১টি জায়গায় কার্ফু জারি করা হয়েছে।

পাঁচকুলার বিশেষ সিবিআই আদালত থেকে রোহতকের সুনারিয়া জেল। আপাতত এখানেই ঠাঁই হয়েছে ধর্ষণের অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত গুরমিত রাম রহিমের। হাই প্রোফাইল বন্দি। তাই নিরাপত্তার কড়াকড়ি। মোতায়েন রয়েছে পুলিশ, আইটিবিপি ও সিআইএসএফ জওয়ান। গোটা জেল কমপ্লেক্স জুড়ে নিরাপত্তার কড়াকড়ি। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত জেলের কোনও বন্দিকেই তাদের আত্মীয়ের সঙ্গে দেখা করতে দেওয়া হবে না।

First published: 01:30:46 PM Aug 28, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर