প্রশাসনের ধূমপান বিরোধী অভিযানে বাঁকুড়ায় কর্মহীন ২৫ হাজার শ্রমিক, প্রতিবাদ বিড়ি শ্রমিকদের

Jan 24, 2017 02:00 PM IST | Updated on: Jan 24, 2017 04:23 PM IST

#বাঁকুড়া: প্রশাসনের ধূমপান বিরোধী অভিযানে কমে এসেছে বিড়ি সহ অন্যান্য তামাক জাত সামগ্রীর বাজার । আর এতেই প্রায় কর্মহীন হয়ে পড়েছেন বাঁকুড়া জেলা জুড়ে থাকা প্রায় ২৫ হাজার বিড়ি শ্রমিক । এবার প্রশাসনের এই অভিযানকে বে আইনি দাবি করে অবিলম্বে তা বন্ধের দাবি নিয়ে বাঁকুড়ার জেলা শাসকের দফতরে বিক্ষোভে ফেটে পড়লেন কয়েক হাজার বিড়ি শ্রমিক ।

গত ১৭ জানুয়ারি থেকে বাঁকুড়া শহর সহ জেলার বিভিন্ন প্রান্তে বিড়ি , সিগারেট, গুটখা সহ অন্যান্য তামাক জাত সামগ্রী বিক্রি , মজুত , উৎপাদন ও জনবহুল স্থানে ব্যবহার নিষিদ্ধ করে জেলা প্রশাসন । শহর সহ জেলায় এই নিষিদ্ধ সামগ্রী বিক্রি ,মজুত বন্ধ করতে অভিযানেও নামে জেলা প্রশাসন । ফলে চূড়ান্ত সংকটে পড়েন জেলার বিভিন্ন বিড়ি কারখানায় কর্মরত কয়েক হাজার বিড়ি শ্রমিক । দ্রুত বাজার কমে যাওয়ায় উৎপাদন ব্যপক ভাবে কমে যায় । মাত্রাতিরিক্ত ভাবে উৎপাদন কমে যাওয়ায় কাজ হারাতে বসেছেন বাঁকুড়া জেলার অন্যতম কুটির শিল্প বিড়ি বাঁধা শিল্পের সঙ্গে যুক্ত প্রায় ২৫ হাজার বিড়ি শ্রমিক ।

প্রশাসনের ধূমপান বিরোধী অভিযানে বাঁকুড়ায় কর্মহীন ২৫ হাজার শ্রমিক, প্রতিবাদ বিড়ি শ্রমিকদের

বিড়ি শ্রমিকদের দাবি সরকারি আইন অনুযায়ী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান , হাসপাতাল সহ বেশ কয়েকটি এলাকার নির্দিষ্ট দুরত্বের মধ্যে তামাক জাত সামগ্রী বিক্রি আইনগত ভাবে নিষিদ্ধ হলেও সর্বত্র বিড়ি বিক্রি ও মজুত বন্ধ করতে প্রশাসন । গায়ের জোরে তা বন্ধ করার প্রতিবাদে আজ বাঁকুড়ার বামপন্থী বিড়ি শ্রমিক ইউনিয়নগুলির নেতৃত্বে আন্দোলনে নামে বিড়ি শ্রমিকরা । জেলার অধিকাংশ বিড়ি কারখানায় এক দিনের ধর্মঘট করার পাশাপাশি বাঁকুড়া শহরে মিছিল করে জেলা শাসকের দফতর ঘেরাও করেন কয়েক হাজার বিড়ি শ্রমিক । বিড়ি শ্রমিকদের দাবি বিড়ি উৎপাদন , মজুত বন্ধ করতে হলে আগে বাঁকুড়া জেলা প্রশাসনকে অবিলম্বে ২৫ হাজার বিড়ি শ্রমিকের বিকল্প কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে হবে । অবিলম্বে জেলা প্রশাসন সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার না করলে আগামী দিনে আরও বৃহত্তর আন্দোলনের হুমকি দিয়েছেন বিড়ি শ্রমিকরা ।

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES