মমতার পুরীর মন্দিরে ঢোকায় আপত্তি

Apr 18, 2017 01:46 PM IST | Updated on: Apr 18, 2017 05:24 PM IST

#ভুবনেশ্বর: রাজনৈতিক কর্মসূচি না থাকলেও, মমতার ওড়িশা সফরে রাজনীতির ছোঁয়া লেগেছে। মুখ্যমন্ত্রীর ওড়িশা সফর নিয়ে বেশ কেয়কদিন ধরেই চলছে রাজনৈতিক চাপানউতোর। তৃণমূলের দাবি, ব্যক্তিগত সফরে পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে পুজো দিতে যাচ্ছেন দলনেত্রী। একইসঙ্গে অসুস্থ সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গেও দেখা করতে যাবেন তিনি। অসুস্থ সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়কে দেখতে ভুবনেশ্বরের অ্যাপোলো হাসপাতালে যাবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।  তার পর দিন অর্থাৎ, ১৯ শে এপ্রিল পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে পুজো দেওয়ার কথা মুখ্যমন্ত্রীর। কিন্তু সেই পুজো নিয়েও আপত্তি উঠেছে বলে অভিযোগ।

জগন্নাথ মন্দির চত্ত্বরে বিক্ষোভ দেখান সেবাইতদের একাংশ। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় গোমাংস খাওয়ার পক্ষে সওয়াল করেছেন বলে অভিযোগ বিক্ষোভকারীদের। যদিও, তাঁরা ভুল পথে চালিত হচ্ছেন বলে দাবি সেবাইত সংগঠনের। বিক্ষোভ দেখানোয় এক সেবাইত-সহ তিনজনকে আটক করা হয়েছে। পুজো দেওয়া নিয়ে রাজনীতির পিছনে বিজেপির হাত রয়েছে বলে অভিযোগ তৃণমূলের।

মমতার পুরীর মন্দিরে ঢোকায় আপত্তি

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই মন্তব্যের জন্য তাঁর পুরী সফরের আগে ধুন্ধুমার কাণ্ড। বাংলার মুখ্যমন্ত্রীর পুরীর মন্দিরে ঢোকায় আপত্তি জানিয়ে সেবাইতদের একাংশ বিক্ষোভ দেখান। জগন্নাথ মন্দির চত্ত্বরে মিছিলও করেন তাঁরা।

যদিও এটা সংগঠনের মত নয়। আন্দোলনকারীরা ভুল পথে চালিত হয়েছেন বলে দাবি সেবাইত সংগঠনের প্রধানের।

এরপরই রণে ভঙ্গ দেন আন্দোলনকারীরা। বিক্ষোভ দেখানোয় এক সেবাইত-সহ তিন জনকে আটক করেছে পুলিশ। মমতার পুজো দেওয়া নিয়ে বিক্ষোভের ঘটনার সমালোচনায় সরব বিশিষ্টজনেরা।

পুজো দেওয়া নিয়ে রাজনীতির পিছনে বিজেপির হাত রয়েছে বলে অভিযোগ তৃণমূলের।

RELATED STORIES

RECOMMENDED STORIES