পরীক্ষায় অনিয়ম, রাজ্য জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ডকে জরিমানা হাইকোর্টের

May 19, 2017 12:39 PM IST | Updated on: May 19, 2017 12:39 PM IST

#কলকাতা: পরীক্ষায় গাফিলতি ও অনিয়মের অভিযোগে রাজ্য জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ডকে জরিমানা করল কলকাতা হাইকোর্ট ৷ জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ডের বিরুদ্ধে মেডিক্যাল জয়েন্ট পরীক্ষা গ্রহণ প্রক্রিয়ায় প্রচুর গাফিলতি ও অনিয়মের প্রমাণ পেয়ে ৫ লক্ষ টাকা জরিমানার নির্দেশ দিলেন অস্থায়ী প্রধান বিচারপতি নিশীথা মাত্রে ও বিচারপতি তপোব্রত চক্রবর্তীর ডিভিশন বেঞ্চ ৷

সারা দেশে অভিন্ন মেডিক্যাল জয়েন্ট নেওয়ার সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশের পর এবারই ছিল শেষবারের মতো রাজ্যভিত্তিক মেডিক্যাল জয়েন্ট ৷ সেই পরীক্ষায় একাধিক অনিয়ম ও সুবিধা পাইয়ে দেওয়ার অভিযোগে রাজ্য জয়েন্ট এন্ট্রাস বোর্ডের বিরুদ্ধে কলকাতা হাইকোর্টে দায়ের হয় জনস্বার্থ মামলা ৷ সেখানে বলা হয়, প্রশ্নপত্রে উত্তর বেছে নেওয়ার অপশনে বেশ কয়েকটি প্রশ্নে ভুল থাকার জন্য ভুল উত্তর বেছে নেওয়া হলেও পূর্ণ নম্বর দেওয়ার কথা বলে জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ড ৷ এতে বোর্ডের বিরুদ্ধে গাফিলতি ও দায়িত্বজ্ঞানহীনতার অভিযোগ ওঠে ৷ এছাড়াও সংখ্যালঘু পড়ুয়াদের প্রতি পক্ষপাত করারও অভিযোগে বোর্ডের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয় এবং পরীক্ষা বাতিল করার দাবি জানানো হয় ৷

পরীক্ষায় অনিয়ম, রাজ্য জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ডকে জরিমানা হাইকোর্টের

রাজ্যে আল আমিন মিশনের ছয়টি কেন্দ্রের যে সমস্ত পড়ুয়ারা পরীক্ষায় বসেন, দেখা যায় তাদের সাফল্যের হার ৮০-৯০ শতাংশ ৷ যেখানে অন্যান্য সেন্টারের পড়ুয়াদের সাফল্যের হার ৩০-৪০ শতাংশ ৷ এখানেই ওই বিশেষ কেন্দ্রের পরীক্ষার্থীদের প্রতি পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ ওঠে বোর্ডের বিরুদ্ধে ৷

এই জনস্বার্থ মামলার শুনানিতে সমস্ত সওয়াল শোনার পর হাইকোর্ট জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ডের গাফিলতি রয়েছে মেনে নিয়ে ৫ লক্ষ টাকা জরিমানা করে ৷ অস্থায়ী প্রধান বিচারপতি নিশীথা মাত্রে ও বিচারপতি তপোব্রত চক্রবর্তীর ডিভিশন বেঞ্চ বলেন, ‘মেডিক্যাল জয়েন্ট পরীক্ষা দায়িত্বজ্ঞানহীনভাবে নেওয়ার মধ্যে গাফিলতি রয়েছে বোর্ডের ৷’ তবে আদালত পরীক্ষা বাতিল না করায় এ যাত্রায় বেঁচে গেল জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ড ৷

এমনকি হাইকোর্ট এই জরিমানার অর্থ কোথায় খরচ হবে তাও নির্দিষ্ট করে দিয়েছে ৷ অস্থায়ী প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়েছে, এই জরিমানার অর্থ যাবে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে ৷ ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের পিছিয়ে পড়া ছাত্রছাত্রীদের জন্য তা খরচ করা হবে ৷

একইসঙ্গে হাইকোর্টের নজরে আল আমিন মিশনের ৬ কেন্দ্র ৷ সংখ্যালঘু উন্নয়ন দফতরকে ওই কেন্দ্রগুলিতে নজরদারির নির্দেশ দিয়েছে কোর্ট ৷

RECOMMENDED STORIES